ঢাকা, শুক্রবার, ১০ ফাল্গুন ১৪৩০, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১২ শাবান ১৪৪৫

জলবায়ু ও পরিবেশ

কনকনে ঠাণ্ডায় স্থবির পঞ্চগড়ের জনজীবন

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১১৪০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৫, ২০২৩
কনকনে ঠাণ্ডায় স্থবির পঞ্চগড়ের জনজীবন ফাইল ফটো

পঞ্চগড়: দেশের সর্ব উত্তরের জেলা পঞ্চগড়ে  কনকনে বাতাস আর ঘন কুয়াশায় জেঁকে বসেছে তীব্র শীত। শীতে স্থবিরতা দেখা দিয়েছে এ জনপদে।

রাত থেকে কনকনে বাতাস ও গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টির ফোটার মতো ঝরছে কুয়াশা। এদিকে তীব্র শীতে দুর্ভোগে পড়েছে জেলার নিম্ন আয়ের মানুষরা। কেউ কেউ আবার শীত উপেক্ষা করে কাজের সন্ধানে ছুটে চলছেন।

বৃহস্পতিবার (৫ জানুয়ারি) সকাল ৯ টায় তেঁতুলিয়ায় তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ১০ ডিগ্রী সেলসিয়াস। এর আগে একই দিন সকাল ৬টায় তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয় ১০ দশমিক ২ ডিগ্রী সেলসিয়াস।

আবহাওয়া অফিস বলছে, চলতি জানুয়ারি মাসের শেষ পর্যন্ত শৈতপ্রবাহ অব্যাহত থাকবে। এদিকে কনকনে শীতের সঙ্গে বাতাসের গতিবেগ থাকছে ঘণ্টা ৪-৫ কিলোমিটার।

সরেজমিনে দেখা গেছে, তীব্র শীতের হাত থেকে রক্ষা পেতে রাস্তার পাশে খড়-কুটো জ্বালিয়ে শীত নিবারণের চেষ্ঠা করছে স্থানীয়রা। ভোর থেকে সকাল পর্যন্ত ঘনকুয়াশা থাকায় জেলার বিভিন্ন সড়কে হেড লাইট জ্বালিয়ে যানবাহানগুলোকে চলাচল করতে দেখা গেছে।

শহরের রিকশাচালক আব্দুল হাই বাংলানিউজকে বলেন, গত কয়েকদিন ধরে শীতের তীব্রতা অনেকটাই বেড়ে গেছে। তবে গতকাল থেকে যে পরিমাণ ঠাণ্ডা বাতাস বইছে তাতে রাস্তায় চলাচল করা যাচ্ছে না।

স্থানীয় জব্বার আলী বাংলানিউজকে বলেন, আজকের ঠাণ্ডার পরিমাণ অনেকটাই বেশি। যেভাবে বাতাস বইছে তাতে হাত ও শরীর জমে যাচ্ছে।

তেঁতুলিয়া আবহাওয়া পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রাসেল শাহ বাংলানিউজকে বলেন, গত কয়েকদিন থেকে তেঁতুলিয়ায় তাপমাত্রা উঠা-নামা করছে। হিমালয়ের কাছাকাছি পঞ্চগড় জেলা অবস্থিত হওয়ায় উত্তর থেকে বয়ে আসা পাহাড়ি হিমেল হওয়ায় কনকনে শীত অনুভূত হচ্ছে।

বাংলাদেশ সময়: ১১৪০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ০৫, ২০২৩
জেডএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।