ঢাকা, বুধবার, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৯ মে ২০২৪, ২০ জিলকদ ১৪৪৫

নির্বাচন ও ইসি

বরিশাল সিটি নির্বাচন 

‘শতভাগ মিথ্যা’ বলায় আ.লীগ থেকে বহিষ্কার 

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৯১৫ ঘণ্টা, জুন ৫, ২০২৩
‘শতভাগ মিথ্যা’ বলায় আ.লীগ থেকে বহিষ্কার  বহিষ্কৃত ঠেলাগাড়ি প্রতীকের কাউন্সিলর প্রার্থী শরীফ মো. আনিছুর রহমান

বরিশাল: ‘শতভাগ মিথ্যা’ কথা প্রচার করায় বরিশাল সিটি নির্বাচনে ঠেলাগাড়ি প্রতীকের কাউন্সিলর প্রার্থী শরীফ মো. আনিছুর রহমান (আনিছ শরীফ) কে জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী কমিটির পদ থেকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়েছে।

সোমবার (০৫ জুন) রাত সাড়ে ১২ টায় বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বরিশাল মহানগর আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক হেমায়েত উদ্দিন সেরনিয়াবাত সুমন।

নগরের ২৪ নম্বর ওয়ার্ডের বর্তমান কাউন্সিলর আনিছ শরীফ।

সেরনিয়াবাত সুমন স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়েছে- শরীফ মো. আনিছুর রহমানকে সংগঠন বিরোধী কার্যকলাপের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে এবং শতভাগ মিথ্যা কথা প্রচার করায় বরিশাল মহানগর আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য পদ থেকে সাময়িক বহিষ্কার করা হলো।

এরআগে রাত ১২ টার কিছু আগে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট তালুকদার মো. ইউনুস এক ফেসবুক পোস্টের মাধ্যমে বিষয়টি জানান।

সেখানেও সংগঠন বিরোধী কার্যকলাপের সঙ্গ জড়িত থাকার অভিযোগে এবং শতভাগ মিথ্যা কথা প্রচার করায় আনিছুর রহমানকে সাময়িক বহিষ্কারের বিষয়টি উল্লেখ করা হয়।

তবে কি ধরনের সংগঠন বিরোধী কার্যকলাপ ও কোন মিথ্যা কথা প্রচার করে বহিষ্কৃত হলে আনিছুর সে বিষয় দুই বিজ্ঞপ্তির একটিতেও উল্লেখ করা হয়নি।

এরআগে রোববার (০৪ জুন) বিকেলে বরিশাল নগরের ২৪ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সিটি নির্বাচনে অংশগ্রহণকারী ঘুড়ি প্রতীকের প্রার্থী মো. সাফিন মাহামুদের (তারিক) প্রচারণায় বাধা দেওয়া ও ভয়ভীতি দেখানোর অভিযোগে শরীফ মো. আনিছুর রহমান ও তার লোকজনের বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন হয়।  

প্রায় একই সময়ে নিজ নির্বাচনী কার্যালয়ে সাফিন মাহামুদের বিরুদ্ধে নৌকার পোস্টার ছেড়াসহ আওয়ামী লীগের প্রার্থীর বিরুদ্ধে কাজ করার অভিযোগ তুলে সংবাদ সম্মেলন করেন আনিছুর রহমান।

ওই সংবাদ সম্মেলনে তিনি সিটি করপোরেশনের মেয়র প্রার্থীকে পরাজিত করার লক্ষ্যে আর্থিক লেনদেন, প্রার্থীর বিরুদ্ধে দলীয় বিভিন্ন ব্যক্তির অবস্থান তুলে ধরার পাশাপাশি জেলা ও মহানগরের সভাপতির সম্পর্কে বেফাঁস মন্তব্য করেন।  

পাশাপাশি তিনিসহ সিটি করপোরেশনের বর্তমান পরিষদের ১০ জন কাউন্সিলর প্রার্থীর মেয়রের কাছ থেকে দূরে চলে যাওয়া এবং এর প্রভাবের বিষয়েও কথা বলেন। আর এসব কথা বলতে গিয়ে তিনি বলেন, এসব কথার কোন মিথ্যা নেই, আমি মরলে মাত্র সাড়ে তিন হাত জায়গা লাগবে, আমার কোন ভয় নাই।

বাংলাদেশ সময়: ০৯১০ ঘণ্টা, জুন ০৫, ২০২৩
এমএস/এসএএইচ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।