ঢাকা, শুক্রবার, ২৯ চৈত্র ১৪৩০, ১২ এপ্রিল ২০২৪, ০২ শাওয়াল ১৪৪৫

বিনোদন

ইমরানের স্বপ্ন পূরণ, ফারিণের আত্মপ্রকাশে সঙ্গী তাহসান

বিনোদন ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫৪২ ঘণ্টা, এপ্রিল ২, ২০২৪
ইমরানের স্বপ্ন পূরণ, ফারিণের আত্মপ্রকাশে সঙ্গী তাহসান

ঈদ ইত্যাদির বিশেষ আয়োজনের একটি হচ্ছে সংগীতে চমক। যে কারণে ঈদ ইত্যাদির গানগুলোর কথা, সুর, শিল্পী নির্বাচন ও চিত্রায়ণ বেশ ব্যতিক্রমী হয়।

তারই ধারাবাহিকতায় এবারের ঈদের ইত্যাদিতেও শিল্পী নির্বাচনে রয়েছে বড় চমক।

এবারের অনুষ্ঠানে একটি গানে কণ্ঠ দিয়েছেন দুই ভুবনের দুই তারকা জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী তাহসান খান এবং অভিনেত্রী তাসনিয়া ফারিণ। পেশাদার সংগীতশিল্পী না হয়েও খুব চমৎকারভাবেই গানটি গেয়েছেন ফারিণ।

উল্লেখ্য, অভিনয়ে জনপ্রিয় ফারিণের টিভিতে গাওয়া এটিই প্রথম গান। বলা যায় এই গানটির মাধ্যমেই ফারিণের গায়িকা হিসেবে আত্মপ্রকাশ ঘটলো।  

এ প্রসঙ্গে ফারিণ বলেন, ইত্যাদি ছোটবেলা থেকেই আমার প্রিয় অনুষ্ঠান। আমার প্রিয় অনুষ্ঠানে গান গাইতে পেরে খুবই ভালো লাগছে। গানটি ভালো হয়েছে। শোনার পর মনে হয়েছে, ভিন্ন ধরনের গান হয়েছে। আমার বিশ্বাস, সব শ্রেণির শ্রোতা-দর্শকের কাছে ভালো লাগবে এটি। আমাকে সুযোগ দেওয়ার জন্য ইত্যাদির প্রতি কৃতজ্ঞ।

গানটি নিয়ে তাহসান বলেন, এ ধরনের গান আগে করিনি। খুবই উৎসবের আমেজ নিয়ে, আনন্দময় একটি গান হয়েছে। ফারিণও খুব ভালো গেয়েছে।
গানটির কথা লিখেছেন কবির বকুল। সুর ও সংগীত করেছেন ইমরান মাহমুদুল। তাহসান ও ফারিণের এই দ্বৈত সংগীতটি দর্শকরা দারুণ উপভোগ করবেন।

এবারের অনুষ্ঠানে আর একটি গানে কণ্ঠ দিয়েছেন জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী বাপ্পা মজুমদার এবং তার সঙ্গে গেয়েছেন এ প্রজন্মের জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী ইমরান মাহমুদুল। উল্লেখ্য ‘গাড়ি চলে না, চলে না’ গানটি গেয়ে বাপ্পা মজুমদারের দলছুট দলের প্রথম টিভিতে আত্মপ্রকাশ ঘটে ইত্যাদির মাধ্যমে, আর এই প্রজন্মের জনপ্রিয় শিল্পী ইমরান মাহমুদুল এই প্রথম গাইলেন ইত্যাদিতে।

এ প্রসঙ্গে ইমরান বলেন, ইত্যাদি অনুষ্ঠানের জন্য প্রথম গান গাইতে পেরে খুব ভালো লাগছে। আমার কাছে ইত্যাদি একটি আবেগের নাম। তখনো বিনোদন জগতে গান গাইতে আসিনি। সেই ছোটবেলা থেকে ইত্যাদি দেখতাম। স্বপ্ন দেখতাম, একদিন ইত্যাদিতে গান করব। তখন ইত্যাদিতে একটা গান গাওয়ার সুযোগ পেলেই হিট হয়ে যেতেন শিল্পী। ভাবতাম, কোনো দিন আমি যদি ইত্যাদিতে একটা গান গাইতে পারতাম! এত দীর্ঘ সময় এসে ইত্যাদি অনুষ্ঠানে গান করার সুযোগে স্মৃতিকাতর হওয়ার কথা জানালেন ইমরান।

এই সংগীতশিল্পী আরও বলেন, আমার জন্য এটি একটি বিরাট ব্যাপার। ইত্যাদি আমার জন্য একটি অনুপ্রেরণা, আবেগ। আজ ইত্যাদিতে গাইতে পেরে আমার স্বপ্ন পূরণ হলো।

গানটির কথা লিখেছেন লিটন অধিকারী রিন্টু, সুর ও সংগীত করেছেন ইমরান মাহমুদুল। গত ০২ মার্চ মিরপুর ইনডোর স্টেডিয়ামে ইত্যাদির বিশাল সেটে গান দুটির চিত্রধারণ করা হয়।

প্রতিবারের মত এবারও ঈদের বিশেষ ইত্যাদি একযোগে বিটিভি ও বিটিভি ওয়ার্ল্ডে প্রচারিত হবে ঈদের পরদিন রাত ০৮টার বাংলা সংবাদের পর। ইত্যাদি রচনা, পরিচালনা ও উপস্থাপনা করেছেন হানিফ সংকেত। নির্মাণ করেছে ফাগুন অডিও ভিশন।

বাংলাদেশ সময়: ১৫৪২ ঘণ্টা, এপ্রিল ০২, ২০২৪
এনএটি 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।