ঢাকা, রবিবার, ৮ বৈশাখ ১৪৩১, ২১ এপ্রিল ২০২৪, ১১ শাওয়াল ১৪৪৫

ফুটবল

অপরাজিত থেকেই আবাহনীর হাতে শিরোপা

স্পোর্টস করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১২০০ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ৩০, ২০১৬
অপরাজিত থেকেই আবাহনীর হাতে শিরোপা অপরাজিত থেকেই আবাহনীর হাতে শিরোপা/ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

এক ম্যাচ হাতে রেখে গত ম্যাচেই প্রিমিয়ার লিগের শিরোপা নিশ্চিত করেছিল আবাহনী লিমিটেড। জয় দিয়ে শেষটাও রাঙিয়ে নিলো জর্জ কোটানের দল। অপরাজিত থেকে চ্যাম্পিয়ন হতে আবাহনী ৩-১ গোলে হারিয়েছে রহমতগঞ্জকে।

ঢাকা: এক ম্যাচ হাতে রেখে গত ম্যাচেই প্রিমিয়ার লিগের শিরোপা নিশ্চিত করেছিল আবাহনী লিমিটেড। জয় দিয়ে শেষটাও রাঙিয়ে নিলো জর্জ কোটানের দল।

অপরাজিত থেকে চ্যাম্পিয়ন হতে আবাহনী ৩-১ গোলে হারিয়েছে রহমতগঞ্জকে।

শুক্রবার (৩০ ডিসেম্বর) বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে রহমতগঞ্জের বিপক্ষে শেষ ম্যাচটি আবাহনীর জন্য ছিল শুধু অপরাজিত থাকার চ্যালেঞ্জ। প্রথম লেগেও রহমতগঞ্জকে হারিয়েছিল আবাহনী। সেবার ২-০ গোলে জিতেছিল জর্জ কোটানের ছাত্ররা।

অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হওয়ার ম্যাচে ঐতিহ্যবাহী ক্লাবটি শুরুতে পিছিয়ে পড়ে। তবে, নাবীব নেওয়াজ জীবন আর জোনাথনের গোলে রহমতগঞ্জকে ৩-১ গোলের ব্যবধানে হারিয়ে জয় পায় আবাহনী। দুটি গোল করেন জীবন। রহমতগঞ্জের হয়ে একমাত্র গোলটি করেন সিও জুনাপিও।

অপরাজিত থেকেই আবাহনীর হাতে শিরোপাম্যাচের ২২তম মিনিটে সিও জুনাপিওর হেডে এগিয়ে যায় রহমতগঞ্জ। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে পঞ্চম শিরোপা জেতা আবাহনীকে প্রথমার্ধে পিছিয়ে থেকেই বিরতিতে যেতে হয়।

বিরতির পর ম্যাচের ৪৯তম মিনিটে আবাহনীকে সমতায় ফেরান জীবন। ৬০ মিনিটের মাথায় নিজের ও দলের দ্বিতীয় গোলটিও করেন জীবন। আর যোগ করা সময়ে জোনাথন গোল করলে অপরাজিত থেকে শিরোপা জয়ের স্বাদ নিয়ে মাঠ ছাড়ে আকাশী-নীল জার্সিধারিরা।  

সর্বোচ্চ ৫২ পয়েণ্ট নিয়ে এবারের প্রিমিয়ার লিগ শেষ করলো আবাহনী। ২২ ম্যাচে ১৫ জয় ও ৭ ড্র নিয়ে আসর শেষ করল জর্জ কোটানের শিষ্যরা।

বাংলাদেশ সময়: ১৮০০ ঘণ্টা, ৩০ ডিসেম্বর ২০১৬
এমআরপি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।