ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১২ বৈশাখ ১৪৩১, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ১৫ শাওয়াল ১৪৪৫

স্বাস্থ্য

সরকারি দায়িত্বে ফাঁকি দেওয়া চিকিৎসকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫০২ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ২, ২০২৩
সরকারি দায়িত্বে ফাঁকি দেওয়া চিকিৎসকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা

হবিগঞ্জ: সরকারি দায়িত্বে ফাঁকি দিয়ে বেসরকারি হাসপাতালে সিজারিয়ান অপারেশন করায় হবিগঞ্জের বাহুবল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের এনেস্থেসিওলজিস্ট ডা. জাহেদ খানের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিচ্ছে স্বাস্থ্য বিভাগ।
 
হবিগঞ্জের সিভিল সার্জন ডা. মোহাম্মদ নুরুল হক বাংলানিউজকে এ তথ্য জানান।

এ বিষয়ে ঊর্ধ্বতন দফতরে লিখিত দেওয়ার কথাও নিশ্চিত করেন তিনি।
 
জানা গেছে, গত ২৫ জানুয়ারি হবিগঞ্জ শহরের দি জাপান বাংলাদেশ হাসপাতালে সিজারিয়ান অপারেশনের পর এনেস্থেসিওলজিস্ট, নার্স ও চিকিৎসা সংক্রান্ত প্রয়োজনীয় যন্ত্রপাতি পাওয়া যায়নি। এজন্য ভ্রাম্যমাণ আদালত এ প্রতিষ্ঠানের মালিক আরিফুল ইসলামকে ৬ মাসের কারাদণ্ড দেন। তবে আদালতের উপস্থিতি টের পেয়ে সেখান থেকে পালিয়ে যান গাইনি বিশেষজ্ঞ ডা. উম্মে কাসমিরা জাহান ও এনেস্থেসিওলজিস্ট ডা. জাহেদ খান। পরে ডা. কাসমিরা ফিরে এলেও সামনে আসেননি ডা. জাহেদ।
 
অভিযুক্ত ডা. জাহেদ বাহুবল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে দায়িত্বরত। তবে সেদিন তিনি যে সময়ে জাপান বাংলাদেশ হাসপাতালে দায়িত্বে পালন করেছেন তখন তার থাকার কথা বাহুবল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে। এতেই প্রমাণ হয় তিনি সরকারি দায়িত্ব অবহেলা করেছেন।
 
এ বিষয়ে হবিগঞ্জের সিভিল সার্জন মোহাম্মদ নুরুল হক বলেন, ডা. জাহেদ খানের সরকারি দায়িত্ব অবহেলার বিষয়ে ঊর্ধ্বতন দফতরে লিখিতভাবে জানিয়েছি। তাকে কারণ দর্শানোর নোটিসও দেওয়া হয়েছে।
 
তিনি আরও বলেন, ডা. কাশমিরা জাহানকে আয়ার সহায়তায় অপারেশন করার বিষয়ে ব্যখ্যা চেয়ে চিঠি দিয়েছি। তাদের লিখিত জবাব পাওয়ার পর প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
 
বাংলাদেশ সময়: ১৪৫৯ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ০২, ২০২৩
এসএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।