ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৫ মাঘ ১৪২৯, ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১৭ রজব ১৪৪৪

আন্তর্জাতিক

নভেম্বরে স্বেচ্ছায় চাকরি ছেড়েছেন ৪৫ লাখ মার্কিনি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫৫৫ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৫, ২০২২
নভেম্বরে স্বেচ্ছায় চাকরি ছেড়েছেন ৪৫ লাখ মার্কিনি প্রতীকী ছবি

যুক্তরাষ্ট্রে স্বেচ্ছায় চাকরি ছেড়ে দিচ্ছেন কর্মীরা। ২০২০ সালের নভেম্বরে রেকর্ড ৪৫ লাখ মার্কিন কর্মী তাদের চাকরি ছেড়ে দিয়েছেন।

আগের মাস সেপ্টেম্বর থেকে যা ৩ শতাংশ বেশি।  

যুক্তরাষ্ট্রের শ্রম পরিসংখ্যান ব্যুরোর বরাত দিয়ে মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনএনের প্রতিবেদনে বলা হয়, সবচেয়ে বেশি চাকরি ছেড়েছেন আতিথেয়তা শিল্পের কর্মীরা। নভেম্বরে এই শিল্প থেকেই চাকরি ছেড়েছেন ৬.১ শতাংশ কর্মী। একই সঙ্গে স্বাস্থ্যসেবা, পরিবহন ও গুদামজাতকরণ খাতের কর্মীরাও উল্লেখযোগ্য হারে চাকরি ছাড়ছেন।  

ইন্ডিড হায়ারিং ল্যাবের গবেষণা পরিচালক নিক বাঙ্কার সিএনএনকে বলেন, কর্মীরা আশঙ্কাজনহারে চাকরি ছেড়ে দিচ্ছেন। করোনা মহামারির মধ্যে নিম্ন-মজুরির খাতগুলোর ক্ষেত্রে এটা বেশি দেখা যাচ্ছে।  

তিনি আরও বলেন, ২০২১ সালে মজুরি বৃদ্ধি বেশি ছিল। ২০২২ সালে সেটা অব্যাহত থাকবে বলে আশা করা হচ্ছে।  

নতুন ও সম্ভাবনাময় কর্মস্থলের আশায় নিম্ন-মজুরির এসব চাকরি কর্মীরা ছেড়ে দিচ্ছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।

তবে স্থানীয় সময় মঙ্গলবার (৪ জানুয়ারি) মার্কিন শ্রম বিভাগ জানায়, নভেম্বরে চাকরির পদ সৃষ্টি হয়েছে ১ কোটি ৬ লাখ। অক্টোবরে এই সংখ্যা ছিল ১১ কোটি ১ লাখ। আর নভেম্বরে ৬৭ লাখ কর্মীকে চাকরি দিয়েছেন নিয়োগকর্তারা। অক্টোবরে এই সংখ্যা ছিল ৬৫ লাখ।  

করোনা মহামারির মধ্যে লকডাউনে যুক্তরাষ্ট্রের অনেক প্রতিষ্ঠান বন্ধ হয়ে যায় বা কর্মী ছাঁটাই করে। ২০২০ সালের মার্চ থেকে এপ্রিলের মধ্যে সেখানে অন্তত ২২ লাখ কর্মী চাকরি হারিয়েছেন। এতে করে সেখানে বেকারত্বের হার দাঁড়ায় ১৪.৮ শতাংশ।  

কিন্তু বিশাল সরকারি অনুদান ও করোনা টিকার কারণে যুক্তরাষ্ট্রের অর্থনীতি আবার চাঙ্গা হচ্ছে। ২০২০ সালের এপ্রিল থেকে অন্তত ১ কোটি ৮৫ লাখ কর্মী চাকরি পেয়েছেন।  

এখন যুক্তরাষ্ট্রে বেকারত্বের হার ৪.২ শতাংশে নেমে এসেছে। অর্থনীতিবিদরা যে পূর্ণ কর্মসংস্থান বিবেচনা করেন, এই হার তার কাছাকাছি।

বাংলাদেশ সময়: ১৫৫৫ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৫, ২০২২
জেএইচটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa