ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৫ মাঘ ১৪২৯, ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১৭ রজব ১৪৪৪

আন্তর্জাতিক

পানির ট্যাংকে মিলল কোটি রুপি!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫১২ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৯, ২০২২
পানির ট্যাংকে মিলল কোটি রুপি!

কয়েক সপ্তাহ আগে ভারতের কানপুরের ব্যবসায়ী পীযূষ জৈনের বাড়িতে চালানো হয় ম্যারাথন তল্লাশি। অভিযানে ১৯৭ কোটি নগদ রুপি উদ্ধার করেছিল আয়কর দফতর।

জব্দ করা হয় রাশি রাশি সোনাও। এবার পরিমাণ ঠিক অত না হলেও মধ্যপ্রদেশের এক ব্যবসায়ীর বাড়িতে ৩৯ ঘণ্টা তল্লাশি চালিয়ে নগদ আট কোটি রুপিসহ উদ্ধার হলো প্রায় তিন কেজি সোনা।

এসব রুপি উদ্ধার করতে রীতিমতো হিমশিম খেতে হয়েছে আয়কর দফতরের কর্মকর্তাদের। কারণ মাটির নিচে একটি পানির ট্যাংক থেকে উদ্ধার করা হয় এক কোটি রুপি। একটি ব্যাগের মধ্যে ওই টাকা লুকিয়ে রাখা হয়েছিল। এছাড়া জব্দ করা তিন কেজির সোনার আনুমানিক মূল্য প্রায় পাঁচ কোটি রুপি।

আয়কর দফতর সূত্র জানিয়েছে, ওই ব্যবসায়ীর নাম শঙ্কর রাই। তিনি মধ্যপ্রদেশের দামোহ জেলার বাসিন্দা।

আয়কর দফতরের জব্বলপুর বিভাগের যুগ্ম কমিশনার মুনমুন শর্মা বলেন, শঙ্কর রাইয়ের বাড়ি থেকে আট কোটি রুপি উদ্ধার হয়েছে। এর মধ্যে এক কোটি রুপি মাটির নিচে ট্যাংকের ভেতর লুকিয়ে রাখা একটি ব্যাগ থেকে উদ্ধার করা হয়। এছাড়া জব্দ করা হয় তিন কেজি সোনাও।

আয়কর দফতরের এই ম্যারাথন তল্লাশি চালানোর ভিডিও ইতোমধ্যে অনলাইনে চলে এসেছে। তাতে দেখা গেছে, সংস্থার এক কর্মী হেয়ার ড্রায়ার দিয়ে রুপি শুকাচ্ছেন। একজন আবার ইস্ত্রি করে রুপি সমান করছেন।

ব্যবসায়ী শঙ্কর রাই মধ্যপ্রদেশের দামোহ নগর পৌরসভার একজন জনপ্রতিনিধি। তিনি কংগ্রেসের হয়ে ভোটে লড়েন। অন্যদিকে তার ভাই কমল রাই পৌরসভার ভাইস-চেয়ারম্যান ছিলেন।

এদিকে আয়কর দফতর জানিয়েছে, কর্মচারীদের নামে তিন ডজনেরও বেশি বাস রয়েছে রাই পরিবারের। তাদের সম্পত্তির হদিস দিতে ১০ হাজার রুপি পুরস্কারও ঘোষণা করা হয়েছে।  

যুগ্ম কমিশনার মুনমুন শর্মা বলেন, এ বিষয়ে তদন্ত এখনও শেষ হয়নি। এখন পর্যন্ত যে সব নথি উদ্ধার হয়েছে তার ভিত্তিতে আরও তল্লাশি চালানো হবে।

সূত্র: এবিপি

বাংলাদেশ সময়: ১৫১২ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৯, ২০২২
এনএসআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa