ঢাকা, সোমবার, ২২ মাঘ ১৪২৯, ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১৪ রজব ১৪৪৪

আন্তর্জাতিক

রাশিয়াকে থামাতে চায় যুক্তরাষ্ট্র ও ন্যাটো

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬২৭ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১২, ২০২২
রাশিয়াকে থামাতে চায় যুক্তরাষ্ট্র ও ন্যাটো

২০১৯ সালের পর এই প্রথম আলোচনায় বসতে যাচ্ছে উত্তর আটলান্টিক নিরাপত্তা জোট (ন্যাটো) ও রাশিয়া।

বুধবার (১২ জানুয়ারি) বেলজিয়ামের রাজধানী ব্রাসেলসে এই আলোচনা অনুষ্ঠিত হবে বলে জানিয়েছে জার্মান সংবাদমাধ্যম ডয়চে ভেলে।

আলোচনায় রাশিয়ার উপ পররাষ্ট্রমন্ত্রী আলেক্সাণ্ডার গ্রাশকো ও উপ প্রতিরক্ষামন্ত্রী আলেক্সাণ্ডার ফোমিন অংশ নেবেন। এছাড়া ব্রাসেলসে ন্যাটোর সদরদপ্তরে মার্কিন উপ পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়েন্ডি শারমান উপস্থিত থাকবেন।

এর আগে সোমবার (১০ জানুয়ারি) সুইজারল্যান্ডের জেনেভায় যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে আলোচনায় বসে রাশিয়া।  

ইউক্রেনের পূর্বাঞ্চলে গত কয়েকমাস ধরে প্রায় এক লাখ সেনা ও অস্ত্র মোতায়েন করেছে রাশিয়া। এই অবস্থায় দেশটি আবারও ইউক্রেনে ঢুকে হামলা চালাতে পারে বলে আশঙ্কা করছে যুক্তরাষ্ট্র ও ন্যাটো।

২০১৪ সালে ইউক্রেনের ক্রাইমিয়া দখল করে রাশিয়া। তখনও ইউক্রেন সীমান্তে সেনা ও অস্ত্র মোতায়েন করেছিল দেশটি।

বুধবার আলোচনায় ন্যাটোর লক্ষ্য থাকবে ২০১৪ সালের পুনরাবৃত্তি ঠেকানো। বিনিময়ে ন্যাটো তার কার্যক্রম আরও পূর্বে সরাবে না, এই নিশ্চয়তা চাইতে পারে রাশিয়া। এছাড়াও ন্যাটো ইউরোপ থেকে তাদের সেনা ও অস্ত্রসংখ্যা কমাবে এবং ইউক্রেন কখনও ন্যাটোর সদস্য হবে না, এই নিশ্চয়তাও চাইবে দেশটি।

ইউক্রেন বর্তমানে ন্যাটোর সহযোগী দেশ হিসেবে রয়েছে। যুক্তরাষ্ট্র ও ন্যাটো ইতোমধ্যে দেশটির সদস্যপদের ওপর বিধিনিষেধ আরোপের বিষয়টি কৌশলে প্রত্যাখ্যান করেছে।

তবে ন্যাটোর সঙ্গে আলোচনার পর বৃহস্পতিবার অর্গানাইজেশন ফর সিকিউরিটি অ্যাণ্ড কো-অপারেশন ইন ইউরোপের সঙ্গে আলোচনা করবে রাশিয়া।

বাংলাদেশ সময়: ১৬২৭ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১২, ২০২২
এনএসআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa