ঢাকা, সোমবার, ৮ বৈশাখ ১৪৩১, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ১২ শাওয়াল ১৪৪৫

আইন ও আদালত

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ঘটনায় জুডিসিয়াল সার্ভিসের নিন্দা

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৫২ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৬, ২০২৩
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ঘটনায় জুডিসিয়াল সার্ভিসের নিন্দা

ঢাকা: ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের-১ বিচারক (জেলা ও দায়রা জজ) মোহাম্মদ ফারুকের অশ্রাব্য ভাষায় গালিগালাজ ও অশালীন আচরণের ঘটনায় নিন্দা জানিয়েছে জুডিসিয়াল সার্ভিস অ্যাসোসিয়েশন।

শুক্রবার (৬ জানুয়ারি) জুডিসিয়াল সার্ভিস অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি এএইচএম হাবিবুর রহমান ভূঁইয়া ও মহাসচিব মো. মজিবুর রহমান নিন্দা জানিয়ে দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান।

নিন্দা প্রস্তাবে বলা হয়, গত ২ জানুয়ারি কতিপয় আইনজীবী ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-১ এর এজলাস কক্ষে বেআইনিভাবে বিচারিক কাজে নগ্ন হস্তক্ষেপ ও বিচারকের সঙ্গে যে শিষ্টাচার বহির্ভূত ও অশালীন আচরণ করেছে তা অনভিপ্রেত, ন্যক্কারজনক ও অত্যন্ত দুঃখজনক। এতে বিচার বিভাগের মর্যাদা ও সম্মান মারাত্মকভাবে ক্ষুণ্ন হয়েছে।  

বাংলাদেশ জুডিসিয়াল সার্ভিস অ্যাসোসিয়েশন উক্ত ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছে এবং সুষ্ঠু তদন্তপূর্বক দোষী ব্যক্তিদের উপযুক্ত দৃষ্টান্তমূলক বিচার দাবি করছে যাতে ভবিষ্যতে কেউ এ ধরনের নিন্দনীয় ও ঔদ্ধত্বপূর্ণ কাজ করার দুঃসাহস না দেখায়।

এ নিন্দা প্রস্তাবের অনুলিপি প্রধান বিচারপতি, আইনমন্ত্রী ও আইন সচিব বরাবরে পাঠানো হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ২০৫১ ঘণ্টা, জানুয়ারি ০৬, ২০২২
ইএস/আরবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।