ঢাকা, বুধবার, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৯ মে ২০২৪, ২০ জিলকদ ১৪৪৫

জাতীয়

চিলাহাটি-পার্বতীপুর রুটে মিশ্র ট্রেনের ট্রায়াল রান সম্পন্ন

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৩৫৬ ঘণ্টা, এপ্রিল ২, ২০২৩
চিলাহাটি-পার্বতীপুর রুটে মিশ্র ট্রেনের ট্রায়াল রান সম্পন্ন

নীলফামারী: ইন্দোনেশিয়া ও চীন থেকে আনা রেলকোচের ট্রায়াল রান সম্পন্ন হয়েছে।  

মেলবন্ধনে মিশ্র ট্রেনের ট্রায়াল সফল হয়েছে বলে দাবি করেছে রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ।

দুই দেশের এসব রেলকোচ একই ট্রেন বহরে যুক্ত করা যাবে কিনা-তা নিয়ে পরীক্ষা-নিরীক্ষা চলছিল দেশের বৃহত্তম সৈয়দপুর রেলওয়ে কারখানায়। কারখানায় এনিয়ে কিছু কারিগরি কাজও করা হয়। অতঃপর ওই মিশ্র ট্রেন পার্বতীপুর-চিলাহাটি রুটে ট্রায়াল রানে (পরীক্ষামূলক দৌড়) অংশ নেয়।  

শনিবার (১ এপ্রিল) দুপুরে ট্রায়াল রানের সময় উপস্থিত ছিলেন সৈয়দপুর রেলওয়ে কারখানার মেকানিক্যাল ইন্সপেকশন ইনচার্জ জাহাঙ্গীর আলম।  

তিনি বলেন, ঈদে ঘরমুখো রেলযাত্রীদের অধিক সেবা দিতে ট্রেনে ট্রেনে অতিরিক্ত কোচ সংযোজনের চিন্তাভাবনা করা হচ্ছে। একইভাবে কয়েকটি বিশেষ ট্রেন চালু করারও চিন্তাভাবনা রয়েছে। এ অবস্থায় কোচ সংকট নিরসনে মিশ্র কোচ সংযোজনের চিন্তাভাবনা করা হয়। সে আনুযায়ী আমরা চীনা কোচের সঙ্গে ইন্দোনেশিয়ার কোচ যুক্ত করে ট্রায়াল রান করালাম। এতে আমরা পুরোপুরি সফল হয়েছি।

রেলওয়ে সূত্র জানায়, সম্প্রতি সরকার চীন থেকে পদ্মা সেতুতে চলাচলের জন্য ১০০টি কোচ আমদানি করেছে। এর ৪০টি কোচের রক্ষণাবেক্ষণ ও কমিশনিং এরই মধ্যে সৈয়দপুর রেলওয়ে কারখানায় সম্পন্ন হয়েছে। এসব কোচ দিয়ে রেলসেবা বাড়াতে কিছু পদক্ষেপ নিয়েছে রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ। বিশেষ ট্রেন চালু ও বিভিন্ন আন্তঃনগর ট্রেনে অতিরিক্ত কোচ সংযোজন করে বেশি বেশি যাত্রী পরিবহনের চিন্তাভাবনা চলছে। তবে সমস্যা হলো, দেশে যেসব ট্রেন চলাচল করে, সেগুলো কেবল একটি দেশ থেকে আমদানিকৃত নয়। বিভিন্ন দেশের এসব কোচের কাপলিং (কোচে কোচে সংযোগ) ব্যবস্থা এক নয়। এ পরিস্থিতিতে রেলওয়ে কারখানা এ ক্রটিগুলো ঠিক করেছে।  

পার্বতীপুর-চিলাহাটি, চিলাহাটি-পার্বতীপুর ১৫০ কিলোমিটার ট্রায়াল রান সম্পন্ন করা হয়। ট্রায়াল রানে সংযুক্ত ছিল চীনা আটটি ও ইন্দোনেশিয়ার চারটি কোচ। ট্রায়াল রানে কোনো সমস্যা সৃষ্টি হয়নি। কাজেই এ পদ্ধতিতে কোচগুলো বিভিন্ন ট্রেনে যুক্ত করা যাবে ও বিশেষ ট্রেনও চালানো যাবে, দাবি রেলওয়ে কর্তৃপক্ষের।

সৈয়দপুর রেলওয়ে কারখানার বিভাগীয় তত্ত্বাবধায়ক (ডিএস) সাদেকুর রহমান জানান, ট্রায়াল রানে সাফল্যের কথা আমি জেনেছি। এসব কোচ দ্রুত রেলওয়ে বিভাগের ট্রাফিক বিভাগে হস্তান্তর করা হবে।  

বাংলাদেশ সময়: ১৩৫২ ঘণ্টা, এপ্রিল ২, ২০২৩
এসআই

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।