ঢাকা, বুধবার, ১৯ মাঘ ১৪২৯, ০১ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ০৯ রজব ১৪৪৪

জাতীয়

চলন্ত মোটরসাইকেলে ছবি তোলাই কাল হলো মেয়রপুত্রের

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৩৯ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৪, ২০২২
চলন্ত মোটরসাইকেলে ছবি তোলাই কাল হলো মেয়রপুত্রের হৃদয় হোসেন

জয়পুরহাট: জয়পুরহাটের পাঁচবিবি উপজেলায় চলন্ত মোটরসাইকেলে ছবি তুলতে গিয়ে হৃদয় হোসেন (২১) নামে এক যুবক নিহত হয়েছেন। এসময় আহত হয়েছেন আরও সাতজন।

মঙ্গলবার (৪ জানুয়ারি) বিকেলে উপজেলার দরগাপাড়া এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। হৃদয় হোসেন জয়পুরহাটের কালাই পৌরসভার মেয়র রাবেয়া সুলতানার ছেলে।

পাঁচবিবি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) পলাশ চন্দ্র দেব বলেন, বিকেলে জয়পুরহাট-হিলি সড়কের দরগাপাড়া এলাকায় দুটি মোটরসাইকেলে কয়েকজন দ্রুতগতিতে জয়পুরহাটের দিকে আসছিলেন। এ সময় একটি মোটরসাইকেল নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে জয়পুরহাট থেকে হিলির দিকে আসা অন্য একটি মোটরসাইকেলকে ধাক্কা দেয়। এতে ঘটনাস্থলে হৃদয়ের মৃত্যু হয়।

তিনি আরও বলেন, তারা চলন্ত মোটরসাইকেলে ছবি তুলছিলেন বলে স্থানীয়রা জানিয়েছে।

আহতরা হলেন- নওগাঁর বদলগাছী উপজেলার নুর মোহাম্মদের ছেলে আল-আমিন (৪০), একই উপজেলার সবুজ উদ্দিনের ছেলে মাসুদ রানা (৪০), জয়পুরহাটের কালাই উপজেলার আল-আমিন (৩০), একই উপজেলার মৃত বনু মিয়ার ছেলে নাজমুল (৩০), ছাদেকুল ইসলামের ছেলে মো. রনি (২০), মোজাফফর হোসেনের ছেলে মো. ছাব্বির (৩০) ও হারুঞ্জা গ্রামের বুলবুলের ছেলে নাজমুল (২২) গুরুতর আহত হন।

খবর পেয়ে পাঁচবিবি ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা হতাহতদের উদ্ধার করে জয়পুরহাট আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন। আহতদের মধ্যে রনি, আল আমিন সাব্বিরের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাদের বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ২০৩২ ঘণ্টা, জানুয়ারি ০৪, ২০২২
আরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa