ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৪ ফাল্গুন ১৪৩০, ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৬ শাবান ১৪৪৫

শিল্প-সাহিত্য

বিশ্বায়নের কবিতা হবে ‘মুক্ত কবিতা’

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬১৫ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৮, ২০২৩
বিশ্বায়নের কবিতা হবে ‘মুক্ত কবিতা’

ঢাকা: কবিতা সাহিত্যের অন্যন্য মাধ্যম। বিশ্বায়নের কালে ভবিষ্যতের কবিতা কেমন হবে? ভাষার বিবর্তন কিংবা ভাষার মৃত্যুতে কবিতাও কি বিপন্ন হবে? কবিতা আগামী মানুষের জীবন-যাপনে কতটা প্রভাব ফেলবে? এমন প্রশ্ন নিয়েই আলোচনা হলো ঢাকা লিট ফেস্টের চতুর্থ দিন।

রোববার (৮ জানুয়ারি) সকালে বাংলা একাডেমির লনে ‘বিশ্বায়নের কালে ভবিষ্যতের কবিতা’ শিরোনামে সেশনটি সঞ্চালনা করেন কবি আসাদ জুয়েল। আলোচনা করেন জাতিসত্তার কবি মুহম্মদ নুরুল হুদা ও পশ্চিমবঙ্গের কবি গৌতম গুহ রায়।

আলোচানায় কবি ও কবিতার নানা দিক দিয়ে আলোচনা হয়। ভবিষ্যতে কারা কবিতা পড়বেন, ভবিষ্যতের কবিতায় ভার্চ্যুয়াল রিয়েলিটির প্রভাব কতটুকু থাকবে, সেই প্রসঙ্গও উঠে আসে কবিদের বক্তব্যে।

আলোচনায় কবি মুহম্মদ নুরুল হুদা বলেন, বাংলাদেশে মায়ের ভাষা বাংলা ভাষা। সব ভাষার মূলে হচ্ছে চেতনা। ভাষার কোনও বৈরিতা নেই। বাংলা আমার প্রকৃতির ভাষা। বাংলা ভাষায় আমি স্বতস্ফূর্ত। অনুবাদ হচ্ছে ট্রানজিট। অনুবাদের মধ্য দিয়ে এক ভাষা থেকে অন্য ভাষায় রূপান্তরিত হয়। বাংলাকে আমার কাছে মনে হয় পৃথিবীর শক্তিশালী ভাষা। একটা সময় বোধ হয়, ১০টি ভাষার মধ্যে বাংলা দুই-তিনের মধ্যে থাকবে। আমাদের যা কিছু লিখেছি, সব অনুবাদ করে বিশ্বের সামনে আনতে হবে। তার মানে এই নয় নিজের ভাষাকে ভুলে যেতে হবে।

আলোচানায় গৌতম গুহ রায় বলেন, আজকের দিনে মানুষ কিন্তু একক হয়ে গেছে। অধিকাংশ ভাষা লুপ্ত হয়ে যাচ্ছে। ভাষা যখন বিপন্ন, মানুষ যখন বিপন্ন তখন কবিতা কী হবে? মানুষকে জনবিচ্ছিন্ন করার যে প্রক্রিয়া সেখানে কবিতাও বিপন্ন করতে পারে? সবচেয়ে জরুরি হচ্ছে প্রাণবন্ত থাকা। মুক্ত কবিতা মানে শেকড়হীন নয়। দিন দিন ভাষা সম্পর্ক নিবিড় হচ্ছে, এটা মননকে আরও পাশাপাশি আনবে।

আয়োজনে বিশ্বায়নের কবিতা মুক্ত কবিতা হবে বলে উল্লেখ করেন কবি মুহম্মদ নুরুল হুদা। এসময় অনুষ্ঠানের শেষে কবিতা পাঠ করেন মুহম্মদ নুরুল হুদা, গৌতম গুহ রায় ও আসাদ জুয়েল।

বাংলাদেশ সময়: ১৬১৫ ঘণ্টা, জানুয়ারি ০৮, ২০২৩
এইচএমএস/এসএ
 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।