ঢাকা, রবিবার, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ১৯ মে ২০২৪, ১০ জিলকদ ১৪৪৫

ক্রিকেট

অখ্যাত পেসারের তোপে উড়ে গেল পাঞ্জাব

স্পোর্টস ডেস্ক  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০০৪১ ঘণ্টা, মার্চ ৩১, ২০২৪
অখ্যাত পেসারের তোপে উড়ে গেল পাঞ্জাব

নিজের প্রথম ওভারে দুই বাউন্ডারিসহ খরচ করলেন মায়াঙ্ক যাদব। তবে সেখানে দিয়ে রাখলেন গতির ঝড় তোলার বার্তা।

দ্বিতীয় ওভারে এসে প্রথম বলটিই করলেন ১৫৫ কিলোমিটার গতিতে। এবারের আসরে তার চেয়ে সর্বোচ্চ গতিতে বল করেননি আর কোনো বোলার।  এরপর নিজের অভিষেক ম্যাচেই অখ্যাত এই পেসার পরিণত হলেন জয়ের নায়কে। শতাধিক রানের উদ্বোধনী জুটির পরও মায়াঙ্কের তোপের মুখে পড়ে খেই হারিয়ে বসে পাঞ্জাব কিংস। লক্ষ্ণৌ সুপার জায়ান্টসের কাছে ২১ রানে হেরেছে তারা।

অটল বিহারী বাজপেয়ী স্টেডিয়ামে লক্ষ্ণৌর দেওয়া ২০০ রানের লক্ষ্য পাঞ্জাব সহজেই পেরিয়ে যাবে বলে মনে হচ্ছিল। উদ্বোধনী জুটিতে ১০২ রান যোগ করেন শিখর ধাওয়ান ও জনি বেয়ারস্টো। ১২তম ওভারে সেই জুটি ভাঙেন মায়াঙ্ক। তার বলে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফেরেন ৪২ রান করা বেয়ারস্টো। এরপর মায়াঙ্কের গতির কাছে আর পাত্তা পায়নি পাঞ্জাব। পরের দুই ওভারে আরও দুই ব্যাটারকে শিকারে পরিণত করেন ডানহাতি এই পেসার। পাঞ্জাব সেই ধাক্কা আর কাটিয়ে উঠতে পারেনি।

একপ্রান্ত আগলে রাখা শিখর ধাওয়ানকেও শেষ পর্যন্ত হাল ছাড়তে হয়। ৫০ বলে ৭ চার ও ৩ ছক্কায় ৭০ রান করেন অধিনায়ক। শেষ পর্যন্ত ২০ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে ১৭৮ রানের বেশি করতে পারেনি পাঞ্জাব। স্রেফ ২৭ রানে ৩ উইকেট নিয়ে ম্যাচসেরা হন মায়াঙ্ক। বাকি দুটি উইকেট নেন মহসিন খান।

টস জিতে ব্যাটিংয়ে নামা লক্ষ্ণৌ বড় জুটি না পেলেও রানের চাকা সচল ছিল সবসময়। শুরুটা করেন কুইন্টন ডি কক। ৩৮ বলে ৫ চার ও ২ ছক্কায় ৫৪ রান করেন বাঁহাতি এই ওপেনার। এরপর ২১ বলে ৪২ রান আসে নিকোলাস পুরানের ব্যাট থেকে। শেষ দিকে ২২ বলে ২ চার ও ৪ ছক্কায় ৪৩ রানের অসাধারণ এক ক্যামিও ইনিংস উপহার দেন ক্রুনাল পান্ডিয়া। পাঞ্জাবের হয়ে স্যাম কারান ২৮ রানে ৩ উইকেট নিলেও দিনশেষে তা বিফলেই যায়।

বাংলাদেশ সময়: ০০৩৯ ঘণ্টা, মার্চ ৩১, ২০২৪

এএইচএস 

 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।