ঢাকা, শনিবার, ৮ আষাঢ় ১৪৩১, ২২ জুন ২০২৪, ১৪ জিলহজ ১৪৪৫

ক্রিকেট

মারুফার হ্যাটট্রিকের পরও হেরে গেল বিকেএসপি

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, স্পোর্টস | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭৪৫ ঘণ্টা, মে ২৬, ২০২৪
মারুফার হ্যাটট্রিকের পরও হেরে গেল বিকেএসপি

হ্যাটট্রিকসহ মারুফা আক্তার নিলেন চার উইকেট। তবুও শক্তিশালী মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের বিপক্ষে জিততে পারেনি বিকেএসপি।

তবে রোববার নারী প্রিমিয়ার লিগ ক্রিকেটে সহজ জয় পেয়েছে দিনের বাকি দুই বড় দল আবাহনী লিমিটেড ও রূপালী ব্যাংক ক্রীড়া চক্র।

বিকেএসপির এক নম্বর মাঠে গুলশান ইয়ুথ ক্লাবকে ৬ উইকেটে হারিয়েছে রূপালী ব্যাংক ক্রীড়া পরিষদ। শুরুতে ব্যাট করে ১১৫ রানে অলআউট হয়ে যায় গুলশান ইয়ুথ। ওই রান ২৫ ওভার ৩ বলেই তাড়া করে ফেলে রূপালী ব্যাংক।

টস হেরে ব্যাট করতে নামা গুলশান ইয়ুথের পক্ষে ৭৭ বলে ৩৭ রান করেন সুরাইয়া আজমিন। রুপালি ব্যাংকের হয়ে ১০ ওভারে ৬টি মেডেন করে স্রেফ ১৩ রান দিয়ে ৪ উইকেট নেন রাবেয়া খান। রান তাড়ায় নেমে ফারজানা হক পিংকি ৬৪ বলে ৩৬ ও লতা মণ্ডলের ৪০ বলে ৩২ রানে সহজ জয় পায় রূপালী ব্যাংক।  

বিকেএসপির চার নম্বর মাঠে মোহামেডানের কাছে ৭২ রানে হেরেছে বাংলাদেশ ক্রীড়া শিক্ষা প্রতিষ্ঠান (বিকেএসপি)। শুরুতে ব্যাট করে ৯ উইকেট হারিয়ে ২২৮ রান করে মোহামেডান। ওই রান তাড়া করতে নেমে ১৫৬ রানে অলআউট হয়ে যায় বিকেএসপি।  

এ ম্যাচে মোহামেডানের ইনিংসের শেষ ওভারে হ্যাটট্রিক করেন পেসার মারুফা । তার ওভারের প্রথম বলে রান আউট হন শম্পা আক্তার। এক বল খেলে মুখোমুখি হওয়া দ্বিতীয় বলে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দেন সাবিকুন নাহার। পরের বলে সুলতানা ইয়াসমিন বৈশাখীকে এলবিডব্লিউয়ের ফাঁদে ফেলেন তিনি। ওভারের পঞ্চম ও টানা তৃতীয় বলে ফারিহা তৃষ্ণা বোল্ড হলে হ্যাটট্রিক পূর্ণ হয় মারুফার।  মোহামেডানের হয়ে হাফ সেঞ্চুরি করেন সোবহানা মোস্তারি। ১০০ বলে ৬৪ রান করে নিশিতার বলে আউট হন তিনি। ৬৮ বলে ৪৬ রান করেন মুর্শিদা খাতুন হ্যাপি।  

রান তাড়ায় নেমে একদমই সুবিধা করতে পারেনি বিকেএসপি। দলটির পক্ষে ৫৪ বলে ৩০ রান করেন অধিনায়ক সুমাইয়া আক্তার। ৭৪ বলে সর্বোচ্চ ৩৯ রান করেন ফাহমিদা ছোঁয়া। মোহামেডানের হয়ে ৬ ওভারে ২৫ রান দিয়ে তিন উইকেট নেন ফারিহা তৃষ্ণা। দুটি করে উইকেট পান সাবিকুন নাহার, ফাতেমা জাহান সোনিয়া ও রুমানা আক্তার।  

তিন নম্বর মাঠে কলাবাগান ক্রীড়া চক্রকে ৭৮ রানে হারিয়েছে আবাহনী। শুরুতে ব্যাট করে ৫ উইকেট হারিয়ে ২৭৭ রান করে আবাহনী। পরে ওই রান তাড়ায় করতে নেমে ১৯৯ রানের বেশি করতে পারেনি কলাবাগান।  

আবাহনীর হয়ে হাফ সেঞ্চুরি পান শারমিন সুলতানা ও রুবাইয়া হায়দার ঝিলিক। ১০২ বল খেলে ৬৮ রান করেন শারমিন, ৮১ বলে ৬৬ রান আসে ঝিলিকের ব্যাট থেকে। কলাবাগানের হয়ে ১০ ওভারে ৩৪ রান দিয়ে ৩ উইকেট নেন মেহরুন নেসা জয়া।  

রান তাড়ায় নামা কলাবাগানের হয়ে হাফ সেঞ্চুরি পান লতিকা মাধব। ৫৫ বলে ৫২ রান করেন তিনি। আবাহনীর হয়ে দুই উইকেট নেন ওপেনার জাহানারা আলম ও শরিফা খাতুন।

বাংলাদেশ সময় : ১৭৪২ ঘণ্টা, মে ২৬, ২০২৪
এমএইচবি/এএইচএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।