ঢাকা, রবিবার, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ১৯ মে ২০২৪, ১০ জিলকদ ১৪৪৫

শিক্ষা

বুয়েটে ছাত্ররাজনীতি ফেরাতে শিক্ষার্থীদের সঙ্গে আলোচনা করবে ছাত্রলীগ

ইউনিভার্সিটি করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১২৫২ ঘণ্টা, এপ্রিল ২, ২০২৪
বুয়েটে ছাত্ররাজনীতি ফেরাতে শিক্ষার্থীদের সঙ্গে আলোচনা করবে ছাত্রলীগ

ঢাকা: বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বুয়েট) ছাত্ররাজনীতি ফেরাতে শিক্ষার্থীদের সঙ্গে আলোচনা করবে ছাত্রলীগ।  

মঙ্গলবার (২ এপ্রিল) সকাল ১১টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যান্টিনে বুয়েটে চলমান আন্দোলন ও হাইকোর্টের স্থগিতাদেশের পরিপ্রেক্ষিতে কর্মসূচি ঘোষণা করেছে ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সভাপতি সাদ্দাম হোসেন।

 

ছাত্রলীগের অন্য কর্মসূচিগুলো হলো বহিষ্কৃত ইমতিয়াজ হোসেন রাহিমের (রাব্বী) আবাসিক হল ফিরিয়ে দেওয়ার দাবিতে বুয়েট শহিদ মিনারে অবস্থান কর্মসূচি; নিয়মতান্ত্রিক ছাত্ররাজনীতি প্রতিষ্ঠার কর্মপরিকল্পনা নির্ধারণে বুয়েট শিক্ষার্থীদের সঙ্গে মতামত আহ্বান ও আলোচনা।  

সাম্প্রদায়িক-মৌলবাদী-জঙ্গী কালোছায়া থেকে বুয়েটকে মুক্ত করতে সেমিনার ও সাংস্কৃতিক উৎসব আয়োজন; বুয়েটে ছাত্র সংসদ নির্বাচনের দাবিতে প্রশাসনের সঙ্গে আলোচনা।  

তবে কোনো কর্মসূচির তারিখ জানায়নি সংগঠনটি। বুয়েট শিক্ষার্থীদের অ্যাকাডেমিক কার্যক্রমে বিঘ্ন না ঘটিয়ে তারিখ ঘোষণা হবে বলে জানিয়েছেন সাদ্দাম হোসেন।  

তিনি বলেন, আমরা বুয়েটের শিক্ষার্থীদের নিয়মতান্ত্রিক ছাত্ররাজনীতির প্রতি আহ্বান জানাব। জনগণের ট্যাক্সের টাকায় বুয়েট পরিচালিত হয়। ফলে সেখানে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের মৌলিক নীতি ও জনগণের প্রচলিত আইন থাকতে হবে। তবে কোন কাঠামোতে বুয়েটে রাজনীতি থাকবে তা শিক্ষার্থীরাই নির্ধারণ করবে।

বুয়েটে কমিটি দেওয়া হবে কিনা জানতে চাইলে সাদ্দাম বলেন, কমিটি গঠনের চেয়ে বুয়েটে নিয়মতান্ত্রিক ছাত্ররাজনীতি চালু করা আমাদের মূল উদ্দেশ্য।  

সংবাদ সম্মেলনে আরও উপস্থিত ছিলেন ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক শেখ ওয়ালী আসিফ ইনান, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি মাজহারুল কবির শয়ন, সাধারণ সম্পাদক তানভীর হাসান সৈকত, ঢাকা মহানগর উত্তর শাখার সভাপতি রিয়াজ মাহমুদ ও সাধারণ সম্পাদক সাগর আহমদে শামীম।  

এর আগে ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস দেওয়াকে কেন্দ্র করে ২০১৯ সালে আবরার ফাহাদ নামে এক শিক্ষার্থীকে হত্যা করা হয়। তখন শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের মুখে ২০১৯ সালের ১১ অক্টোবর একটি জরুরি বিজ্ঞপ্তি জারি করা হয়। বুয়েটের ওই বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়,‘সংশ্লিষ্ট সকলের অবগতির জন্য জানানো যাচ্ছে যে, এই বিশ্ববিদ্যালয়ে সকল রাজনৈতিক সংগঠন এবং এর কার্যক্রম কর্তৃপক্ষের নির্দেশক্রমে নিষিদ্ধ করা হলো। ’

এরপর থেকে বুয়েটে রাজনৈতিক কার্যক্রম নিষিদ্ধ রয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১২৪৯ ঘণ্টা, এপ্রিল ০২, ২০২৪
এসআইএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।