ঢাকা, মঙ্গলবার, ৯ বৈশাখ ১৪৩১, ২৩ এপ্রিল ২০২৪, ১৩ শাওয়াল ১৪৪৫

জাতীয়

শতাধিক গাছ কেটে লুট

ডিভিশনাল সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৯৪২ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৩, ২০২৩
শতাধিক গাছ কেটে লুট

মৌলভীবাজার: সরকারি দিঘির চারপাশ থেকে বেলজিয়াম, আকাশমণি প্রজাতির ১০৫টি গাছ কেটে নিয়ে গেছে মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার শমশেরনগর ইউনিয়নের সতিঝির গ্রামের প্রভাবশালী একটি মহল। স্থানীয়দের দাবি, এ ঘটনায় সরকারের ৩ লাখ টাকার বেশি রাজস্ব ক্ষতি হয়েছে।

জানা গেছে, গত দুদিন ধরে গাছ কেটে লোপাটের ঘটনা ঘটছে। পুলিশকে জানালে থানা থেকে কেটে ফেলা ২৫টি গাছ দেখাশোনার জন্য স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের সদস্যকে অনুরোধ করা হয়েছে।

স্থানীয়দের কাছ থেকে জানা গেছে, দিঘির চারপাশে সারিবদ্ধভাবে লাগানো গাছ কেটে ফেলা সরকারকে অবমাননার শামিল। এ ঘটনায় যারা জড়িত তাদের শাস্তিও দাবি করেছেন স্থানীয়রা।

বিষয়টি জানার পর সোমবার (২ জানুয়ারি) সরেজমিনে গিয়ে শহীদ ও উজ্জ্বল মিয়া নামে দুই ব্যক্তিকে সতিঝিরগ্রামের দিঘির পাশ থেকে গাছ কাটতে দেখা যায়। এ সময় পুলিশও ঘটনাস্থল পরিদর্শনের আসে। পরে তারা দুজন গাছ কাটার যন্ত্রপাতি নিয়ে পালিয়ে যান।

দিঘির চারপাশ ঘুরে গুণে দেখা গেছে, প্রভাবশালী মহলটির লোকেরা বেলজিয়াম ও আকাশমণি প্রজাতির ১০৫ গাছ কেটে ফেলেছে। ঘটনাস্থলে গাছে গুড়ি ছাড়া কিছু নেই। কিছুদূরে কেটে ফেলা ২৫টি গাছ মাটিতে পড়ে থাকতে দেখা যায়। পরে শমশেরনগর পুলিশ ফাঁড়ির উপ-পরিদর্শক (এসআই) সোহেল রানা গাছগুলো দেখভাল করতে স্থানীয় ইউপি সদস্য সানোয়ার হোসেনকে অনুরোধ করেন। এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সানোয়ার হোসেন।

সতিঝির গ্রামের বাসিন্দা মুকিদ মিয়ার অভিযোগ, তিনি, তার ভাই ও এলাকার কয়েকজন মিলে বিদেশি প্রজাতির গাছগুলো রোপণ করেন। কে বা কারা গাছ কেটে লুট করে বিক্রি করেছে তার জানা নেই। ১০৫টি গাছের মূল্য আনুমানিক ৩ লাখ টাকার বেশি। কেটে ফেলায় সরকার রাজস্ব হারিয়েছে বলেও জানা তিনি।

গাছ কাটার সময় দেখা পাওয়া উজ্জ্বল মিয়ার সঙ্গেও কথা বলেন এ প্রতিনিধি। তিনি জানান, শ্রমিক হিসেবে গাছ কাটতে গিয়েছিলেন। পুরো ব্যাপার সম্পর্কে কিছু জানেন না।

শমশেরনগর পুলিশ ফাঁড়ির এসআই সোহেল রানা বলেন, গাছ কেটে লুটের ঘটনা সত্য। আমাদের দেখে শ্রমিকরা পালিয়ে গেছেন, সেটাও আমরা দেখতে পেয়েছি। ২৫টি গাছ পাওয়া গেছে, সেগুলো স্থানীয় ইউপি সদস্যকে দেখভাল করতে অনুরোধ করা হয়েছে।

কমলগঞ্জ সদর তহশিল অফিসের তহশিলদার ইবুঙ হাল বলেন, আমার অফিসের একজন স্টাফ সরেজমিনে গিয়ে সত্যতা পেয়েছেন। এ ঘটনায় কমলগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করা হবে।

কমলগঞ্জ উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) সোমাইয়া আক্তার বলেন, তিনদিন ধরে গাছ কাটা হচ্ছে, কিন্তু আমি জানতাম না। আমাকে জানানো হয়নি। খবর পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে আমি তহশিলদারকে ঘটনাস্থলে পাঠাই। এ ঘটনায় যথাযথ আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

বাংলাদেশ সময়: ০৯৪১ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৩, ২০২২
বিবিবি/এমজে

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।