ঢাকা, শনিবার, ১১ ফাল্গুন ১৪৩০, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৩ শাবান ১৪৪৫

জাতীয়

হাতকড়াসহ পালানো আসামি গ্রেপ্তার, এসআই প্রত্যাহার

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০০০১ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৪, ২০২৩
হাতকড়াসহ পালানো আসামি গ্রেপ্তার, এসআই প্রত্যাহার

বরগুনা: বরগুনার বেতাগী থানা পুলিশের হাত থেকে হাতকড়াসহ পালিয়ে যাওয়া আসামি হাবিব বিশ্বাস (৬০)কে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার ( ৩ জানুয়ারি ) বিকেলে উপজেলার জলিশার হাট বাজার থেকে এসআই শহিদুল ইসলামের নেতৃত্বে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

আসামি হাবিব বিশ্বাস বর্তমানে বেতাগী থানা হেফাজতে আছে।

এ ঘটনায় বেতাগী থানার এসআই শহিদুল ইসলামকে প্রত্যাহার করে বরগুনা পুলিশ লাইন্সে সংযুক্ত করা হয়েছে বলে জানা গেছে।

এর আগে সোমবার (২ জানুয়ারি) দুপুরে বেতাগী থানার এসআই শহিদুল ইসলামের হাত থেকে গ্রেফতারের পর হাতকড়াসহ পালিয়ে যান হাবিব বিশ্বাস (৬০) নামে চুরি মামলার এক আসামি। আসামি পালিয়ে যাওয়ার ৩ ঘণ্টা পর হাতকড়া ও চাবি উদ্ধার হলেও আসামি গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ।

বেতাগী থানা পুলিশ জানায়, গত সপ্তাহে স্থানীয় সোনার বাংলা বাজারের একটি দোকানে দুর্ধর্ষ চুরির ঘটনা ঘটে। তদন্ত করে হাবিব বিশ্বাসের সম্পৃক্ততার প্রাথমিক সত্যতা পায় পুলিশ। এরপর সোমবার দুপুরে বেতাগী থানার এসআই শহিদুল ইসলামসহ পুলিশের একটি টিম হোসনাবাদ এলাকার হাবিব বিশ্বাসের নিজ বাড়িতে অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করে। পরে থানায় নিয়ে আসার পথে হাবিব হাতকড়াসহ দৌড়ে একটি ধান ক্ষেতের মধ্যে দিয়ে পালিয়ে যায়।

বেতাগী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ার হোসেন বলেন, আসামি একজন ছিঁচকে চোর। এ ধরের চোরদের কাছে হাতকড়া বা তালা খোলার মতো চাবি বা যন্ত্রপাতি কিছু না কিছু থাকেই। এমনটাই হয়তো ঘটেছে। কারণ আসামি পালিয়ে যাওয়ায় ২ থেকে ৩ ঘণ্টা পর ধানক্ষেত থেকে হাতকড়াটি অক্ষত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে।  

ওসি আরও বলেন, ইতোমধ্যে বরগুনা জেলা পুলিশ কর্তৃক এ ঘটনায় সম্পৃক্ত এসআই শহিদুল ইসলামকে প্রত্যাহার করে বরগুনা পুলিশ লাইনে সংযুক্ত করা হয়েছে এবং আসামিকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়েছি। বুধবার (৪ জানুয়ারি) তাকে আদালতে সোপর্দ করা হবে।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন ও অর্থ) এসএম তারেক রহমান জানান, তদন্ত চলছে। তদন্ততে সব উঠে আসবে কি হয়েছে না হয়েছে। তদন্তে সত্যতা পেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বাংলাদেশ সময়: ২৩৫৯ ঘণ্টা, জানুয়ারি ০৩, ২০২৩
এসএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।