ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১২ বৈশাখ ১৪৩১, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ১৫ শাওয়াল ১৪৪৫

জাতীয়

হাঁসের কালাভুনা খেয়ে আর বাড়ি ফেরা হলো না ৩ বন্ধুর!

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৩৪ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১০, ২০২৩
হাঁসের কালাভুনা খেয়ে আর বাড়ি ফেরা হলো না ৩ বন্ধুর!

রাজশাহী: রাজশাহীর পবা উপজেলার মড়মড়িয়া গ্রামের কালাভুনার কথা ইদানিং সবার মুখে মুখে। তাই আজ সেই সুস্বাদু কালাভুনা খেতে মোটরসাইকেল নিয়ে মড়মড়িয়া গিয়েছিলেন তিন বন্ধু।

কিন্তু কালাভুনা খেয়ে আর বাড়ি ফেরা হলো না তাদের! 

ঘাতক ট্রাক কেড়ে নিলো তিনটি তরতাজা প্রাণ। মঙ্গলবার (১০ জানুয়ারি) বিকেলে ফেরার পথে বেপরোয়া ট্রাকের সঙ্গে তাদের মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই দুই বন্ধুর মৃত্যু হয়। আর রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে নেওয়ার পথে মারা যায় অপর বন্ধুও। তাদের এই অকাল মৃত্যুতে তাই শোকের মাতম শুরু হয়েছে পরিবার ও স্বজনদের মধ্যে।

আজ বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে রাজশাহীর পবা উপজেলার ডাঙ্গেরহাট সড়কে এ হৃদয়বিদারক ঘটনা ঘটে। বর্তমানে নিহতদের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে রয়েছে। এ ঘটনায় পুলিশ ঘাতক ট্রাকটি (রাজ-মেট্রো-ট-১১-০৪৮৭) আটক করেছে। তবে দুর্ঘটনার পরপরই এর চালক ও হেলপার পালিয়ে গেছেন। বর্তমানে তাদেরকে শনাক্তের চেষ্টা চলছে।

নিহতরা হলেন- রাজশাহী মহানগরীর কাশিয়াডাঙ্গা থানার কাঁঠালবাড়িয়া এলাকার আনোয়ার ড্রাইভারের ছেলে থাই মিস্ত্রি রাকিব (২৬), রাজপাড়া থানার বহরমপুর এলাকার বাবলুর ছেলে ব্যবসায়ী শাহীন (২৮) ও একই এলাকার আবু সাঈদের ছেলে সোহাগ (৩০)।  

স্থানীয়রা জানান, তিন বন্ধু মিলে পবার মড়মড়িয়া গ্রামের হোটেলে হাঁসের কালাভুনা মাংস দিয়ে দুপুরের খাবার খেতে যান। খাবার খেয়ে তারা তিনজন বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে একই মোটরসাইকেল করে রাজশাহী ফিরছিলেন। ডাঙ্গেরহাট মোড় সড়কে পৌঁছালে তাদের মোটরসাইকেলটিকে একটি ট্রাক চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই নিহত যান শাহীন ও সোহাগ। স্থানীয়রা গুরুতর আহতাবস্থায় রাকিবকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়। কিন্তু পথেই তার মৃত্যু হয়। হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নেওয়া হলে দায়িত্বরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। একসঙ্গে তিন বন্ধুর মৃত্যুর ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।  

জানতে চাইলে রাজশাহীর কর্ণহার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইসমাইল হোসেন জানান, বিকেলে ডাঙ্গেরহাট সড়কে ট্রাক একটি মোটরসাইকেলকে চাপা দেয়। এতে রাস্তার ওপরে ছিটকে পড়ে দুইজন ঘটনাস্থলেই মারা যান এবং একজনকে হাসপাতালে নেওয়ার পথে মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় ঘাতক ট্রাকটিকে আটক করা সম্ভব হলেও এর চালক ও হেলপার পালিয়ে গেছেন। বর্তমানে তাদের শনাক্তের চেষ্টা চলছে। এই সড়ক দুর্ঘটনার ব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে।

এছাড়া নিহতদের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্তের পর আইনি প্রক্রিয়া শেষে তাদের মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে বলেও জানান ওই পুলিশ কর্মকর্তা।

বাংলাদেশ সময়: ২০৩৪ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১০, ২০২৩
এসএস/এএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
welcome-ad