ঢাকা, শনিবার, ৩০ চৈত্র ১৪৩০, ১৩ এপ্রিল ২০২৪, ০৩ শাওয়াল ১৪৪৫

জাতীয়

আলীকদমে ২ গরু ব্যবসায়ীকে অপহরণ করে মুক্তিপণ দাবি

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৪৩৭ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১১, ২০২৩
আলীকদমে ২ গরু ব্যবসায়ীকে অপহরণ করে মুক্তিপণ দাবি

বান্দরবান: বান্দরবানের আলীকদম উপজেলায় দুই গরু ব্যবাসায়ীকে অপহরণ করে এক কোটি টাকা মুক্তিপণ দাবি করার অভিযোগ উঠেছে মিয়ানমারের চোরাকারবারীদের বিরুদ্ধে।

সোমবার (৯ জানুয়ারি) রাতে ওই দুইজন গরু ব্যবসায়ীকে অপহরণ করে নিয়ে যায় মিয়ানমারের কিছু চোরাকারবারী।

বান্দরবানের আলীকদম উপজেলার দুর্গম কুরুকপাতা ইউনিয়নের ৯ নম্বর ওয়ার্ডের সীমান্ত এলাকার বড় আঘলা এর ৫৬ নং পিলারের কাছে থেকে তাদের অপহরণ করার হয়। তবে মঙ্গলবার (১০ জানুয়ারি) রাতে অপহরণ এর ঘটনাটি জানাজানি হয়।

অপহৃতরা হলেন- আলীকদম সদর ইউনিয়নের বাজার এলাকায় পশ্চিম পুকুর পাড়ার বাসিন্দা মো. আতিকুর রহমান (৩৫) ও জসিম উদ্দিন (৫৫)। তারা সম্পর্কে শ্যালক-দুলাভাই।

বান্দরবানের আলীকদমের দুর্গম কুরুকপাতা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ক্রাতপুং ম্রো বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বাংলানিউজকে বলেন, স্থানীয়দের মাধ্যমে অপহরণের বিষয়টি জানতে পেরেছি। মিয়ানমারের গরু চোরাকারবারীরা তাদের কাছে এক কোটি টাকার মতো পাওনা টাকা পাবে বলে ধরে নিয়ে গেছে বলে জেনেছি।

আলিকদম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাসির উদ্দিন সরকার বাংলানিউজকে জানান, স্থানীয় এলাকাবাসী ও জনপ্রতিনিধিদের মাধ্যমে বিষয়টি শুনেছি। অপহৃত পরিবারের কেউ এখনও থানায় কোনো অভিযোগ করেননি। অভিযোগ পেলে আইনি পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

প্রসঙ্গত, বান্দরবানের আলীকদম উপজেলার সীমান্ত দিয়ে সম্প্রতি মিয়ানমার থেকে অবৈধ পথে বাংলাদেশে গরু চোরাচালান বৃদ্ধি পেয়েছে। আলীকদম ব্যাটালিয়ন (৫৭ বিজিবি) অভিযান পরিচালনা করে গত ছয় মাসে ৮০৭টি গরু ও মহিষ আটক করেছে। এসব গরুর বাজারমূল্য আট কোটি ৬৩ লাখ ৫০ হাজার টাকা। এ পর্যন্ত এগুলোর বিষয়ে আলীকদম থানায় দুইটি ও কাস্টমস কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে ২৪টি মামলা করেছে বিজিবি।

বাংলাদেশ সময়: ১৪৩৬ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১১, ২০২৩
এফআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
welcome-ad