ঢাকা, শুক্রবার, ৯ ফাল্গুন ১৪৩০, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১২ শাবান ১৪৪৫

জাতীয়

বিচ্ছেদের পর দেবরকে বিয়ের দাবিতে বাড়ির সামনে অবস্থান

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৯৫৫ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১২, ২০২৩
বিচ্ছেদের পর দেবরকে বিয়ের দাবিতে বাড়ির সামনে অবস্থান

রংপুর: রংপুরের বদরগঞ্জে স্বামীর সঙ্গে বিচ্ছেদের পর দেবরকে বিয়ের দাবিতে তার বাড়ির সামনে অবস্থান নিয়েছেন এক গৃহবধূ। গত সাত দিন ধরে নয় বছরের এক সন্তানকে সঙ্গে নিয়ে সেখানেই খোলা আকাশের নিচে থাকছেন তিনি।

স্থানীয় লোকজন থানা পুলিশকে বিষয়টি অবগত করলেও এখন পর্যন্ত কোনো ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি।

বুধবার (১১ জানুয়ারি) বিকেলে সরেজমিনে দেখা যায়, রংপুরের বদরগঞ্জ পৌর শহরে মণ্ডলপাড়ায় দেবর নিতুনের বাড়ির প্রধান ফটকের সামনে একটি বিছানা পেতে সন্তানকে নিয়ে বসে আছেন ওই গৃহবধূ। গত বৃহস্পতিবার (৫ জানুয়ারি) থেকে তিনি সেখানে অবস্থান করছেন। ওই গৃহবধূর বাবার বাড়ি ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জ উপজেলায়।

স্থানীয় ও পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, প্রায় ১৫ বছর আগে মণ্ডলপাড়া গ্রামের আব্দুল করিমের ছেলে মোস্তাফিজারের সঙ্গে বিয়ে হয় ওই গৃহবধূর। এক ছেলে সন্তানকে নিয়ে তাদের সংসার ভালোই চলছিল। এরই মধ্যে ওই গৃহবধূকে কু-প্রস্তাব দিতে শুরু করেন তার দেবর মোস্তাফিজারের ছোট ভাই নিতুন মিয়া। বিভিন্ন সময়ে ওই গৃহবধূর মোবাইলে আপত্তিকর খুদে বার্তা পাঠান নিতুন। বিষয়টি জানতে পেরে গৃহবধূর সঙ্গে তার স্বামীর দূরত্ব তৈরি হয়। একপর্যায়ে তাদের মধ্যে বিচ্ছেদ হয়।

ওই গৃহবধূ বলেন, নিতুনের কারণে আমার সুখের সংসার ভেঙেছে। আমি ওকেই বিয়ে করতে চাই। বিয়ে না করা পর্যন্ত এখান থেকে যাবো না।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে নিতুন মিয়া বলেন, ভাবি আমার চেয়ে ১০ বছরের বড়। দুই বছর আগে তার বিচ্ছেদ হয়েছে। এতদিন পরে তিনি কারও ইন্ধনে আমার বাড়িতে এসেছেন।

এ বিষয়ে বদরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হাবিবুর রহমান বলেন, বিষয়টি জানার পর ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ০৯৫৫ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১২, ২০২৩
আরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।