ঢাকা, শনিবার, ১৯ ফাল্গুন ১৪৩০, ০২ মার্চ ২০২৪, ২০ শাবান ১৪৪৫

জাতীয়

ঘরে ঢুকে কিশোরীর গলা, হাত-পায়ের রগ কাটল দুর্বৃত্তরা

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫২১ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১২, ২০২৩
ঘরে ঢুকে কিশোরীর গলা, হাত-পায়ের রগ কাটল দুর্বৃত্তরা

ব্রাহ্মণবাড়িয়া: শহরের মেড্ডা এলাকায় সামিয়া (১৫) নামে এক কিশোরীর ঘরে ঢুকে তার গলা, চার হাত-পায়ের রগ কেটে দিয়েছে দুর্বৃত্তরা। গুরুতর অবস্থায় তাকে জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১২ জানুয়ারি) সকালে ঘটনাটি ঘটে। আহত সামিরা ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইল উপজেলার ইসলামাবাদ (গোগদ) গ্রামের রাশেদ মিয়ার মেয়ে। মেড্ডায় বড় বোনের বাসায় থেকে স্থানীয় একটি মাদরাসায় পড়াশোনা করে সামিয়া।

জানা গেছে, সকালে এক ভাগ্নিসহ সামিয়াকে ঘরে রেখে বাজারে যান তার বড় বোন। সামিয়াকে ঘরে রেখে ছাদে যায় তার ভাগ্নি। কিছুক্ষণ পর সামিয়ার চিৎকার শোনা যায়। এ সময় বাড়ির মালিক ও আশপাশের প্রতিবেশীরা সামিয়ার ঘরে এসে আহত অবস্থায় দেখতে পান। সামিয়ার গলা ও চার হাত-পায়ের রগ কাটা অবস্থায় দেখতে পান। এ অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করেন তারা।

জেলা সদর হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক ডা. হাবিবুর রহমান বলেন, গুরুতর আহত অবস্থায় কিশোরী সামিয়াকে সার্জারি বিভাগে ভর্তি করা হয়। বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা তার অপারেশন করছেন। এখন পর্যন্ত সামিয়ার অবস্থায় শঙ্কামুক্ত বলা যায়।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এমরানুল ইসলাম জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, পূর্ব শত্রুতার জের ধরে ঘটনাটি ঘটানো হয়েছে। দুর্বৃত্তদের ধরতে তদন্ত শুরু হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৩২০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১২, ২০২৩
এমজে

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।