ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১২ বৈশাখ ১৪৩১, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ১৫ শাওয়াল ১৪৪৫

জাতীয়

লুণ্ঠিত স্বর্ণালঙ্কারসহ অজ্ঞান পার্টির ৮ সদস্য গ্রেফতার

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০০৩৩ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৩, ২০২৩
লুণ্ঠিত স্বর্ণালঙ্কারসহ অজ্ঞান পার্টির ৮ সদস্য গ্রেফতার

খুলনা: খুলনায় আন্তঃজেলা অজ্ঞান পার্টি চোর চক্রের ৮ সদস্যকে গ্রেফতার এবং চুরি যাওয়া স্বর্ণালঙ্কার, মোবাইল ফোন ও মোটরসাইকেল উদ্ধার করেছে পুলিশ ।

পৃথক ২টি ঘটনায় চেতনা নাশক প্রয়োগ করে চুরির ঘটনায় ডুমুরিয়া থানায় ২টি মামলা হয়।

এর পরিপ্রেক্ষিতে ডুমুরিয়া থানা পুলিশ কয়েকদিন ধরে একাধিক বার বিভিন্ন জেলায় অভিযান পরিচালনা করে তাদের গ্রেফতার করে।

বৃহস্পতিবার (১২ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় খুলনা জেলা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মাহবুব হাসান বাংলানিউজকে এ তথ্য জানান।

ডুমুরিয়া থানা সূত্রে জানা গেছে, অজ্ঞাতপরিচয় আসামিরা পরস্পর যোগসাজসে গত বছরের ৯ নভেম্বর বিকেল ৩টার দিকে ডুমুরিয়ার খর্নিয়ায় একটি মুদি দোকানের সামনে ডাবের মধ্যে চেতনা নাশক প্রয়োগের মাধ্যমে সালাউদ্দিনকে অচেতন করেন। এবং নগদ টাকা, স্বর্ণালংকার, মোবাইল ফোন, এটিএম কার্ড চুরি করে নিয়ে যায়। তার অভিযোগের ভিত্তিতে ডুমুরিয়া থানায় একটি মামলা করা হয়। মামলা নং-০১, তারিখ-০১/১২/২০২২ খ্রি।

এছাড়া গত বছরের ১৭ ডিসেম্বর রাত ১১টা ৪৫ মিনিটে জাকিরুল ইসলাম ও তার পরিবারের সদস্যদের কে বা কারা চেতনা নাশক ওষুধ প্রয়োগ করে রাতে ঘরের গ্রিল কেটে মোবাইল, স্বর্ণালঙ্কার ও নগদ টাকা চুরি করে নিয়ে যায়। তার অভিযোগের ভিত্তিতে ডুমুরিয়া থানায় আরো একটি মামলা হয়। যার মামলা নং-২০, তারিখ-২১/১২/২০২২ খ্রিঃ।

মামলা দুটির অপরাধের ধরন একই হওয়ায় এদের মধ্যে একটা চক্র কাজ করছে এমন ধারণা নিয়ে মামলা দুটি তদন্তে নামে এবং চক্রটিকে ধরার জন্য সর্বাত্মক অভিযানে নামে ডুমুরিয়া থানা পুলিশ।

ডুমুরিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সেখ কনি মিয়া বলেন, ডুমুরিয়া থানা এলাকাসহ বিভিন্ন জেলায় একাধিক বার অভিযান পরিচালনা করে মামলার ঘটনার সাথে জড়িত মোট ৮ জন আসামিকে গ্রেফতার করা হয় এবং লুন্ঠিত স্বর্ণালঙ্কার, মোবাইল ফোন ও মোটরসাইকেল উদ্ধার করা হয়।

বাংলাদেশ সময়: ০০২৫ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৩, ২০২৩
এমআরএম/এএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।