ঢাকা, বুধবার, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৯ মে ২০২৪, ২০ জিলকদ ১৪৪৫

জাতীয়

উত্তর বাড্ডায় তরুণীর রহস্যজনক মৃত্যু 

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৪৫ ঘণ্টা, মে ২৫, ২০২৩
উত্তর বাড্ডায় তরুণীর রহস্যজনক মৃত্যু  ফাইল ফটো

ঢাকা: রাজধানীর উত্তর বাড্ডার একটি বাসায় আফসানা সুলতানা সুপ্তি (২৪) নামে এক তরুণীর রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৫ মে) বিকেল ৪টার দিকে অচেতন অবস্থায় তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

সাতক্ষীরার দেবহাটা উপজেলার নোয়াপাড়া গ্রামের মনিরুজ্জামানের মেয়ে সুপ্তি। দুই বোনের মধ্যে তিনি ছিলেন বড়।

উত্তর বাড্ডার মিসরিটোলা এলাকার ফুজি টাওয়ারের পেছনের একটি ৬ষ্ঠ তলা বাড়ির ৩য় তলার ভাড়াটিয়া সামসুন্নাহার মিতু জানান, তাদের ভাড়া বাসার একটি রুমে ৫ মাস ধরে সাবলেট হিসেবে থাকতেন সুপ্তি। প্রায় সময় তিনি পড়ালেখা নিয়েই ব্যস্ত থাকতেন।

বৃহস্পতিবার (২৫ মে) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে ঘুম থেকে উঠে বাথরুমে যান সুপ্তি। এর কিছুক্ষণ পর বাথরুমের ভেতর থেকেই দরজা ধাক্কাধাক্কি করে আপু আপু বলে ডাকছিলেন তিনি। বাথরুমের ভেতর পড়ে আছেন, দরজা খোলারও শক্তি নেই বলে বারবার দরজা খুলে তাকে বের করতে বলছিলেন। তবে মিতু কিছুতেই বাইরে থেকে দরজা খুলতে পারছিলেন না। একপর্যায়ে আশপাশের ভাড়াটিয়াদের সহযোগিতায় বাথরুমের দরজা ভেঙে দেখেন, ভেতরে পড়ে আছেন সুপ্তি। সঙ্গে সঙ্গে তাকে হাসপাতালে নিয়ে যান।

সুপ্তির চাচা অধ্যাপক আফসার আহমেদ বাবলু জানান, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগ থেকে এবার মাস্টার্স শেষ করেছেন তিনি। এরপর ঢাকায় থেকে বিসিএসের প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন। উত্তর বাড্ডার ওই বাসায় সাবলেট হিসেবে ভাড়া থাকতেন। তার মা'ও তার সঙ্গে থাকতেন। তবে কিছুদিন আগে তার মা গ্রামে যান। উচ্চ রক্তচাপ ও ডায়াবেটিকস ছিল সুপ্তির। তাদের ধারণা, অসুস্থতাজনিত কারণে তার মৃত্যু হয়েছে।

চিকিৎসকের বরাত দিয়ে ঢামেক হাসপাতাল পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ (পরিদর্শক) মো. বাচ্চু মিয়া মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, চিকিৎকদের কাছেও তার মৃত্যু বিষয়টি অস্বাভাবিক মনে হওয়ায় ময়নাতদন্তের সুপারিশ করেছেন। ঘটনাটি বাড্ডা থানা পুলিশ তদন্ত করছে।

বাংলাদেশ সময়: ২০৪৫ ঘণ্টা, মে ২৫, ২০২৩
এজেডএস/জেএইচ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।