ঢাকা, শুক্রবার, ২৯ চৈত্র ১৪৩০, ১২ এপ্রিল ২০২৪, ০২ শাওয়াল ১৪৪৫

জাতীয়

স্বামীকে কুপিয়ে হত্যার পর ঘরে লাশ রেখে থানায় হাজির স্ত্রী 

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১০৩৩ ঘণ্টা, মার্চ ২, ২০২৪
স্বামীকে কুপিয়ে হত্যার পর ঘরে লাশ রেখে থানায় হাজির স্ত্রী 

পটুয়াখালী: বাসায় স্বামীকে কুপিয়ে হত্যার পর থানায় গিয়ে আত্মসমর্পণ করলেন মীম আক্তার (১৯) নামের এক নারী।  

শুক্রবার (১ মার্চ) রাতে পটুয়াখালী শহরের কলাতলা এলাকায় একটি বাসায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহতের নাম রাকিব (৩০)।  অভিযুক্ত মীমকে হেফাজতে নেওয়ার পাশাপাশি রাকিবের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ।

পুলিশ জানায়, মীম নামের ওই নারী তার স্বামীকে খুন করে পটুয়াখালী সদর থানায় গিয়ে দায়িত্বরত অফিসারকে বিষয়টি জানান। পুলিশ তার কাছ থেকে বাসার ঠিকানা নিয়ে ঘটনাস্থলে এসে দেখে রাকিবের রক্তাক্ত মরদেহ।  

নিহত রাকিবের মাথায় কোপের চিহ্ন রয়েছে বলে জানিয়েছে পটুয়াখালী থানা পুলিশ।  

রাকিবের বাবা নজরুল ইসলাম বলেন, ‘আসরের সময় রাকিব ও মীম বাসায় আসে। আমি নামাজ পড়ে এসে দেখি তারা বাসায়। আমার ছোট ছেলে এসে বলে বড় ভাইয়ের (রাকিব) গলার মধ্যে কেমন যেন শব্দ করছে। এ খবর শুনে আমি ছেলের ঘরে গেলে মীম জানায়, রাকিব ঘুমাচ্ছে। এ কথা শুনে ফিরে আসি। পরে আমি মাগরিবের নামাজ পরে ফিরে আসার পর ছোট ছেলে জানায়, রাকিবকে মেরে ফেলছে।

পটুয়াখালীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) আহমাদ মাঈনুল হাসান বলেন, হত্যার বিষয়টি আশপাশের লোকজন টের পায়নি। কেন কি কারণে এ ঘটনা ঘটেছে তা জানার চেষ্টা চলছে।

বাংলাদেশ সময়: ১০২৯ ঘণ্টা, মার্চ ২, ২০২৪
এসএএইচ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।