ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ১৩ জুন ২০২৪, ০৫ জিলহজ ১৪৪৫

জাতীয়

ফরিদপুরে খাদ্য কর্মকর্তার প্রকাশ্যে ঘুষ নেওয়ার ভিডিও ভাইরাল 

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭১৪ ঘণ্টা, মে ২২, ২০২৪

ফরিদপুর: ফরিদপুরের ভাঙ্গায় খাদ্য বান্ধব ডিলারদের কাছে থেকে মো. তরিকুল ইসলাম নামে এক উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক কর্মকর্তার প্রকাশ্যে ঘুষ নেওয়ার একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে।  

বুধবার (২২ মে) সকালে সোশ্যাল মিডিয়া ফেসবুকে দুই মিনিট ২৭ সেকেন্ডের ওই ভিডিও ছড়িয়ে পড়ে।

ভিডিও সূত্রে জানা যায়, উপজেলার আলগি ইউনিয়নের খাদ্যবান্ধব ডিলার মো. আসাদুজ্জামান ও ঘারুয়া ইউনিয়নের আবুল বাশার মিয়া, ভাঙ্গা উপজেলার খাদ্য কর্মকর্তা তরিকুল ইসলাম প্রকাশ্যে ঘুষ গ্রহণ করেন। প্রকাশ্য ভিডিওতে ১০ হাজার টাকার আছে বলে উল্লেখ করেন।  

এসময় এক ডিলারকে বলতে শোনা যায়, স্যার যে কয়বার যাওয়া লাগে আপনি যাইয়েন, কোনো লোক পাঠাইয়েন না। আপনি একটা অকথা বললেও আমাদের সহ্য হবে কারণ আপনাদের দপ্তর। আপনি দুইটা একটা খারাপ কথা বইলেন অন্যকে দিয়ে বলাইয়েন না। পাশের থেকে আরেকজন বলেন, স্যার যা বলার আপনি বলে দিয়েন, আপনার ডিলাররা কোনো অনিয়ম করে না।

এ বিষয়ে খাদ্যবান্ধব ডিলার আবুল বাসার মিয়া জানান, খাদ্য নিয়ন্ত্রক কর্মকর্তা স্যারের সঙ্গে আমাদের কোনো লেনদেন নেই, আমরা খাদ্য বান্ধব ডিলার রাজ্জাক স্যারের সঙ্গে লেনদেন করি। অনেক সময় টিসিবির মালের টাকা তার কাছে জমা রাখি। কিন্তু তরিকুল স্যারের কাছে কোনো টাকা লেনদেন করি নাই এটা আমার মনে পড়ে না।  

এ ব্যাপারে বক্তব্য জানতে খাদ্য নিয়ন্ত্রক কর্মকর্তা মো. তরিকুল ইসলামের মোবাইল ফোনে একাধিক কল করা হলেও তা বন্ধ পাওয়া যায়।  

এদিকে ভিডিও ভাইরালের বিষয়ে ভাঙ্গা উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) বিএম কুদরত-এ-খুদা বলেন, এখনো আমি ভিডিওটি দেখি নি। এমন যদি ঘটনা ঘটে থাকে তাহলে অবশ্যই খাদ্য কর্মকর্তার বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এদিকে এ বিষয়ে ফরিদপুর জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মো. ফরহাদ খন্দকার জানান, ভিডিওটি আমি দেখেছি। এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বাংলাদেশ সময়: ১৭১৩ ঘণ্টা, মে ২২, ২০২৪
আরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।