ঢাকা, রবিবার, ২১ মাঘ ১৪২৯, ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১৩ রজব ১৪৪৪

জাতীয়

রাঙ্গাবালীতে নিখোঁজের ৫ দিন পর কিশোরের মরদেহ উদ্ধার

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২৯ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৮, ২০২২
রাঙ্গাবালীতে নিখোঁজের ৫ দিন পর কিশোরের মরদেহ উদ্ধার ...

পটুয়াখালী: মাছ ধরতে গিয়ে নিখোঁজ হওয়ার পাঁচদিন পর  মো. নিয়াজ (১৭) নামে এক কিশোরের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

শনিবার (৮ জানুয়ারি) সকালে পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালী উপজেলার আগুনমুখা নদী থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

নিহত নিয়াজ গলাচিপা উপজেলার সতিরাম গ্রামের জলিল হাওলাদারের ছেলে। নিয়াজ পেশায় একজন জেলে ছিলেন।

জানা গেছে, গত ৩ জানুয়ারি বিকেল ৫টায় নিয়াজসহ আরও তিন জন গলাচিপা উপজেলার পানপট্টি থেকে ট্রলার নিয়ে মাছ ধরার জন্য রাঙ্গাবালী উপজেলার চালিতাবুনিয়া ইউনিয়নের গরুভাঙ্গা এলাকার আগুনমুখা নদীতে যান। কিন্তু ওইদিন রাত ১১টার পর ট্রলারে অন্যরা থাকলেও নিয়াজ নিখোঁজ হন। অনেক খোঁজাখুঁজির পরও তাকে পাওয়া যায়নি।

পুলিশ জানায়, এ ঘটনার পরদিন (৪ জানুয়ারি) ছেলে নিখোঁজের বিষয়ে নিয়াজের বাবা জলিল হাওলাদার রাঙ্গাবালী থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন। পরে নিখোঁজের শনিবার সকালে উপজেলার চালিতাবুনিয়া ইউনিয়নের বিবির হাওলা এনআই সিনিয়র ফাজিল মাদরাসার পূর্বপাশের স্লুইসগেট সংলগ্ন আগুনমুখা নদীর পাড়ে নিয়াজের অর্ধগলিত মরদেহ দেখতে পান স্থানীয়রা।

কোস্ট গার্ড সদর দপ্তরের মিডিয়া কর্মকর্তা লে. আব্দুর রহমান স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানা যায়, খবর পেয়ে কোস্ট গার্ড আউটপোস্ট রাঙ্গাবালীর উদ্ধারকারী দল মরদেহটি উদ্ধার করে রাঙ্গাবালী থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করেন।

এ ব্যাপারে রাঙ্গাবালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দেওয়ান জগলুল হাসান বলেন, মরদেহের সুরতহাল রিপোর্ট প্রস্তুত করা হয়েছে। শরীরের কোথাও কোনো আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি। মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য পটুয়াখালী মর্গে পাঠানো হয়েছে। একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ২০২৮ ঘণ্টা, জানুয়ারি ০৮, ২০২২
কেএআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa