ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৫ মাঘ ১৪২৯, ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১৭ রজব ১৪৪৪

জাতীয়

ট্রিপ বাড়াতে বেপরোয়া গতিতে বাস চালাচ্ছিলেন চালক

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫০২ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৯, ২০২২
ট্রিপ বাড়াতে বেপরোয়া গতিতে বাস চালাচ্ছিলেন চালক

ঢাকা: রাজধানীর যাত্রাবাড়ী হানিফ ফ্লাইওভারের গুলিস্তান সংযোগে নামার সময় বেপরোয়া গতিতে ছিল বাস। এ সময় ব্রেকে কোনো কাজ না করায় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে অন্য বাস থেকে নামা যাত্রী ও পথচারীকে চাপা দেন মেঘলা পরিবহনের চালক রাকিব।

এ দুর্ঘটনায় শেখ ফরিদ (২৮) ও মো. বাদশা মিয়া (৩২) নামে দুই পথচারী নিহত হন।

শনিবার (৮ জানুয়ারি) রাতে রাজধানীর ওয়ারী এলাকা থেকে দুর্ঘটনা কবলিত বাসের চালক রাকিব শরীফকে (২৫) আটকের পর প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে এ তথ্য জানতে পারে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)।

রোববার (০৯ জানুয়ারি) দুপুরে রাজধানীর কারওয়ান বাজারে র‌্যাব মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান র‌্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন।

তিনি বলেন, চুক্তি অনুযায়ী একদিন বাসের মালিককে দিতে হয় দুই হাজার ২৫০ টাকা। স্বাভাবিক গতিতে গাড়ি চালালে যেকয়টি ট্রিপ হয় তাতে গাড়ির জমার টাকা তুলতেই বেগ পেতে হয় চালককে। তাই ট্রিপ বাড়াতে বেপরোয়া গতিতে গাড়ি চালাচ্ছিলেন মেঘলা পরিবহন বাসের চালক রাকিব। খন্দকার আল মঈন বলেন, চালকের হালকা পরিবহন চালানোর লাইসেন্স ছিল। এ লাইসেন্স দিয়েই তিনি ভারী যানবাহন চালাচ্ছিলেন। চালক রাকিব সাত থেকে আট বছর ধরে মেঘলা পরিবহন বাসের চালকের সহকারী হিসেবে কাজ করেতেন। পাশাপাশি বাস চালানোর প্রশিক্ষণ নেন। পরে বাস চালাতে দেওয়ার জন্য মালিকদের অনুরোধ করেন তিনি। কিন্তু লাইসেন্স না থাকায় কোনো মালিক তাকে বাস চালানোর অনুমতি দিচ্ছিলেন না। পরে ২০১৯ সালে তিনি হালকা গাড়ি চালানোর লাইসেন্স করেন।

তিনি বলেন, গ্রেফতার রাকিব আরও জানান, গত ১৫ দিন আগে বাসটির মালিক সবুর মিয়ার (৫০) কাছে দৈনিক ২ হাজার ২৫০ টাকা হারে বাসটি ভাড়ায় চালানো শুরু করেন তিনি। গত ৮ জানুয়ারি যথারীতি বাসটি নিয়ে সকাল ৮টা ৪৫ মিনিটে ভুলতার গাউছিয়া থেকে গুলিস্তানের উদ্দেশে ছেড়ে আসে বাস। আনুমানিক সকাল সাড়ে ৯টার দিকে যাত্রাবাড়ী হানিফ ফ্লাইওভার দিয়ে গুলিস্তান সংযোগে নামার সময় বাসটির অধিক গতি থাকার কারণে এবং ব্রেক কাজ না করায় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলেন চালক। পরে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রাস্তার বাম পাশের আইল্যান্ড ঘেঁষে বাস চলতে থাকে। এ সময় ফ্লাইওভারে অন্য একটি বাস থেকে যাত্রী নামছিলেন। তাদের মধ্যে কয়েকজন পথচারীকে চাপা দেয় মেঘলা পরিবহনের বাসটি। এতে দুজনকে গুরুতর আহত অবস্থায় উদ্ধার করে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নেওয়া হলে চিকিৎসক তাদের মৃত ঘোষণা করেন।

এক প্রশ্নের জবাবে আল মঈন বলেন, ভুক্তভোগী পরিবার অজ্ঞাত চালককে আসামি করে মামলা করেছে। আমরা দুর্ঘটনা কবলিত বাস মালিককে জিজ্ঞাসাবাদ করেছি। তদন্তে মালিকের কোনো গাফিলতি পেলে ব্যবস্থা নেবে পুলিশ।

এর আগে গত ০৮ জানুয়ারি সকাল সাড়ে ৯টার দিকে রাজধানীর হানিফ ফ্লাইওভারে সকালে মেঘলা পরিবহনের একটি বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে কয়েকজন পথচারীকে চাপা দেয়। এতে ওই দুই পথচারীর মৃত্যু হয়। ঘটনাস্থল থেকে বাসচালক পালিয়ে যান। এদিন দুর্ঘটনায় নিহত ব্যক্তিদের পরিবারের সদস্যরা ওয়ারী থানায় সড়ক ও পরিবহন আইন-২০১৮ এর ৯৮ ও ১০৫ ধারায় একটি মামলা দায়ের করেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৫০২ ঘণ্টা, জানুয়ারি ০৯, ২০২২
এসজেএ/আরআইএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa