ঢাকা, বুধবার, ১৯ মাঘ ১৪২৯, ০১ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ০৯ রজব ১৪৪৪

রাজনীতি

নাঙ্গলকোটে ২ প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষ, আহত ১০ 

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট   | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৫৮ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১, ২০২২
নাঙ্গলকোটে ২ প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষ, আহত ১০  প্রতীকী ছবি

কুমিল্লা: কুমিল্লার নাঙ্গলকোট উপজেলার বাঙ্গড্ডা ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী এয়াকুব আলী মজুমদার ও তার কর্মী-সমর্থকদের ওপর হামলার ঘটনার ঘটনা ঘটেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। একই অভিযোগ করেছেন বিদ্রোহী প্রার্থী আনারস প্রতীকের সাইফুল ইসলাম।

 

শনিবার (০১ জানুয়ারি) সকালে ওই ইউনিয়নের হেসিয়ারা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

সন্ধ্যার দিকে নৌকার প্রার্থী এয়াকুব আলী বাংলানিউজকে বলেন, হেসিয়ারা গ্রামে নির্বাচনী অফিস করতে গেলে সাইফুল ইসলামের সমর্থকরা বাধা দেন। এরপরও সেখানে আমরা অফিস নির্মাণ করলে শুক্রবার (৩১ ডিসেম্বর) রাতে তারা ওই নির্বাচনী অফিসে আগুন লাগিয়ে দেন। শনিবার সকালে আমরা সেখানে গেলে সাইফুল তার নেতা-কর্মীদের নিয়ে আমাদের ওপর হামলা চালান। তারা আমার তিন ভাই কবির আহম্মেদ, পেয়ার আহম্মেদ, আলমগীর হোসেনসহ নেতা-কর্মীদের পিটিয়ে এবং কুপিয়ে আহত করে। আমি এ ঘটনার বিচার চাই।  

এসব অভিযোগ অস্বীকার করে সাইফুল ইসলাম বাংলানিউজকে বলেন, সকালে জানতে পারি, হেসিয়ারা গ্রামে আমার কর্মী-সমর্থকদের ওপর হামলা করছে নৌকা প্রার্থী এয়াকুব আলীর লোকজন। পরে ঘটনাস্থলে গেলে এয়াকুবের লোকজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে আমার এবং আমার নেতা-কর্মীদের ওপর হামলা চালায়। হামলায় আমার কর্মী হেসিয়ারা গ্রামের হারুন মিয়া, সুমন ও শাহজাহান আহত হয়েছেন।
 
এ প্রসঙ্গে নাঙ্গলকোট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফারুক হোসেন বাংলানিউজকে বলেন, বাঙ্গড্ডায় নির্বাচনীয় সহিংসতা হয়েছে দুই প্রার্থীর মধ্যে। নৌকা প্রতীকের প্রার্থী থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রেখেছে। ঘটনাটি তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।  

বাংলাদেশ সময়: ২০৫৮ ঘণ্টা, জানুয়ারি ০১, ২০২২
এসআরএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa