ঢাকা, সোমবার, ১৩ ফাল্গুন ১৪৩০, ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৫ শাবান ১৪৪৫

জাতীয়

শ্যামনগরে প্রধান শিক্ষকের আত্মহত্যা, ৭ জনের বিরুদ্ধে মামলা

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৫০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৫, ২০২৩
শ্যামনগরে প্রধান শিক্ষকের আত্মহত্যা, ৭ জনের বিরুদ্ধে মামলা প্রধান শিক্ষক আবুল বাসার: ফাইল ফটো

সাতক্ষীরা: সাতক্ষীরার শ্যামনগর উপজেলার কৈখালী এসআর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আবুল বাসারের আত্মহত্যার ঘটনায় সাতজনকে আসামি করে মামলা করা হয়েছে।

বুধবার (৪ জানুয়ারি) রাতে মৃতের স্ত্রী মোছা. নুরুন্নাহার পারভীন বাদী হয়ে শ্যামনগর থানায় মামলাটি (মামলা নং চার) করেন।

স্বামীর সঙ্গে একই কর্মস্থলে কর্মরত তিনজন সহকারী শিক্ষকসহ বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি ও তিন সদস্যকে মামলায় আসামি করা হয়।

এজাহারে উল্লেখ করা হয়, পারস্পারিক যোগসাজশে নানামুখী চাপ প্রয়োগের মাধ্যমে তার স্বামীকে আত্মহত্যার পথে ঠেলে দেয়া হয়েছে।

এদিকে, সাতক্ষীরা মর্গে ময়নাতদন্ত শেষে ওই প্রধান শিক্ষকের মরদেহ বৃহস্পতিবার (৫ জানুয়ারি) বিকেলে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করে পুলিশ।

বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের পক্ষ হতে শোকজ নোটিশ পাওয়ার পর গলায় দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা করেন প্রধান শিক্ষক আবুল বাসার।

আগের কমিটির মেয়াদকালে নিয়োগ দেওয়া ব্যক্তিদের নিকট থেকে আদায়কৃত প্রায় পৌনে এক কোটি টাকার হিসাব চাওয়া হয় তার কাছে। যথাসময়ের মধ্যে হিসাব দিতে ব্যর্থ হলে তাকে প্রধান শিক্ষকের পদ থেকে বহিষ্কারের হুমকি দেওয়া হয় বলে অভিযোগ তার পরিবারের।

এদিকে, প্রধান শিক্ষক আবুল বাসারের আত্মহত্যার ঘটনায় গোটা এলাকাজুড়ে ব্যাপক সমালোচনার ঝড় উঠেছে। নিজেদের মেয়াদকালে পরিচালনা পর্ষদের শীর্ষ ব্যক্তিদের মর্জিমাফিক জনবল নিয়োগ প্রদানসহ অর্থ গ্রহণের পর দায়িত্বে থাকা শিক্ষকদের উপর প্রতিপক্ষের মানসিক চাপ সৃষ্টির ঘটনায় রীতিমতো তোলপাড় শুরু হয়েছে।

বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে কর্মচারী নিয়োগ দেওয়ার মাধ্যমে পরিচালনা পর্ষদের অর্থ আত্মসাতের পর প্রধান শিক্ষককে বলির পাঠা বানানোর ঘটনার বিশদ তদন্ত দাবি করেছে উপজেলায় কর্মরত শিক্ষকরা।

তারা বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে জনবল নিয়োগ প্রদানসহ নানা ক্ষেত্রে পরিচালনা পর্ষদের অযাচিত হস্তক্ষেপ বন্ধেরও আহ্বান জানিয়েছেন।

শ্যামনগর উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষক সমিতির সভাপতি প্রধান শিক্ষক কৃষ্ণেন্দু মুখার্জী জানান, পরিচালনা পর্ষদের চাপের কারণে আবুল বাসার আত্মহত্যার পথ বেছে নিয়েছেন। সদ্য গঠিত কমিটি তার উপর প্রবল চাপ সৃষ্টি করায় তিনি কয়েকদিন আগে থেকে সহকর্মীদের কাছে নিজের অসহায়ত্বের বিষয়টি জানিয়ে আসছিলেন। আবুল বাসারের আত্মহত্যার ঘটনায় প্ররোচনার সঙ্গে জড়িতদের পাশাপাশি ঐ বিদ্যালয়ের নিয়োগ সংক্রান্ত যাবতীয় বিষয়ে তদন্তের দাবি জানান তিনি।

বাংলাদেশ সময়: ২১৫০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৫, ২০২৩
জেএইচ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।