ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৬ মাঘ ১৪২৯, ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১৭ রজব ১৪৪৪

জাতীয়

১১ মাস পর মায়ের কোলে ফিরল ট্রেন থেকে ছিটকে পড়া শিশু

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯৫২ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১০, ২০২২
১১ মাস পর মায়ের কোলে ফিরল ট্রেন থেকে ছিটকে পড়া শিশু

ব্রাহ্মণবাড়িয়া: চলন্ত ট্রেন থেকে ছিটকে পড়ে পরিচয়হীন হিসেবে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকা সেই শিশুটি দীর্ঘ ১১ মাস পর মায়ের কোলে ফিরেছে। মিলেছে শিশুটির নাম-পরিচয়ও।

 

শরীফ মিয়া নামের শিশুটি জেলার আখাউড়া উপজেলার মোগড়া ইউপির ধনরাজপুর গ্রামের রশিদ মিয়া ও চানবানুর সন্তান।  

সোমবার (১০ জানুয়ারি) দুপুরে ব্রাহ্মণবাড়িয় ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ওয়াহিদুজ্জামান শিশুটিকে তার মায়ের কোলে তুলে দেন।  

এসময় ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাব সভাপতি রিয়াজউদ্দিন জামি, সাবেক সভাপতি সৈয়দ মিজানুর রেজা, সদর উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান শামীমা আক্তার ও শিশুটিকে দেখাশোনা করা সদর হাসপাতালের পরিচ্ছন্নতা কর্মী উজ্জ্বল মিয়া উপস্থিত ছিলেন।  

তত্ত্বাবধায়ক ওযহিদুজ্জামান জানান, পরিবার শিশুটিকে নিতে আসায় তাদের পরিচয় নিশ্চিত হয়ে শিশুটিকে তাদের কাছে দেওয়া হয়েছে। অর্থের অভাবে চিকিৎসা না করাতে পারা ও মায়ের মানসিক অসুস্থতার কারণে এতোদিন পরিবার তার খোঁজ নেয়নি।  

২০২১ সালের ৩ জানুয়ারি জেলার আশুগঞ্জে চলন্ত ট্রেন থেকে পড়ে গিয়ে গুরুতর আহত হয় শিশুটি। পরে রেললাইনের পাশ থেকে শিশুটিকে উদ্ধার করে পুলিশ। এরপর ২৫ দিন শিশুটি কোমায় ছিল। তারপর ধীরে ধীরে সুস্থ হতে শুরু করে সে। গত এক বছর ধরে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালের সার্জারি বিভাগে চিকিৎসাধীন ছিল সে। সে সময় নিজ দায়িত্বে শিশুটির সার্বিক দেখাশোনা ও পরিচর্যা করতেন হাসপাতালের পরিচ্ছন্নতা কর্মী উজ্জ্বল মিয়া।  

বাংলাদেশ সময়: ১৯৫১ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১০, ২০২২
এসআই

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa